শিরোনামঃ-


» আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তৈরি আছে : স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

প্রকাশিত: ২২. এপ্রিল. ২০১৯ | সোমবার

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল জানিয়েছেন,
যেকোনো ধরনের পরিস্থিতি মোকাবেলায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তৈরি আছে। বাংলাদেশে শ্রীলঙ্কার মতো হামলার কোনো আশঙ্কা নেই ।

ইস্টার সানডের প্রার্থনার মধ্যে রোববার শ্রীলঙ্কায় গির্জা ও হোটেল মিলিয়ে আটটি স্থানে বোমা হামলায় মৃতের সংখ্যা ২৯০ এ পৌঁছেছে।
বনানীতে শেখ ফজলুল করিম সেলিমের বাসায় এসে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাংবাদিকদের বলেন, যেকোনো ধরনের পরিস্থিতি মোকাবেলায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তৈরি আছে।
হামলায় একটি হোটেলে থাকা আওয়ামী লীগ নেতা শেখ ফজলুল করিম সেলিমের নাতি জায়ান চৌধুরীও মারা যায় । আহত হয়েছেন তার বাবা মশিউল হক চৌধুরী প্রিন্স।
মঙ্গলবার জায়ানের মরদেহ দেশে আসার কথা রয়েছে। শেখ সেলিমের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাতে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল সোমবার দুপুর সাড়ে ১২টার তার বনানীর বাসায় আসেন।
সেখান থেকে বেরিয়ে যাওয়ার সময় সাংবাদিকদের প্রশ্নে শ্রীলঙ্কার ঘটনা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, বাংলাদেশ এ ব্যাপারে যথেষ্ট সতর্ক আছে।
ঝুঁকিযুক্ত বা ঝুঁকিমুক্ত এমন প্রশ্ন আসে না। আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী সর্বাত্মক সচেষ্ট আছে, সতর্ক আছে। এ ধরনের ঘটনা ঘটতে পারে সেরকম তথ্য আমাদের কাছে নেই।
তারপরও আমরা ইস্টার সানডের জন্য বিশেষ নজর রেখেছিলাম আমাদের চার্চগুলোর দিকে। এছাড়া শবে বরাতের জন্যও আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী সতর্ক ছিল।
স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমার মনে হয় আমাদের নিরাপত্তা বাহিনী এবং দেশের জনগণ এই ধরনের জঙ্গিবাদ-সন্ত্রাসবাদকে পছন্দ করে না; আশ্রয়-প্রশ্রয় দেয় না। এই নীতিতে বিশ্বাস করে না বলেই আমাদের দেশ মোটামুটি শান্তই আছে।
শ্রীলঙ্কার হামলা খুবই হৃদয়বিদারক ঘটনা উল্লেখ করে তিনি এ ধরনের সন্ত্রাসবাদ রোধে আন্তর্জাতিক সহযোগিতা বাড়ানোর কথা বলেন।
এই ধরনের ঘটনা যেন না ঘটে সেজন্য ট্রান্স ন্যাশনাল ক্রাইমের ওপর আমাদের নজর দেওয়া উচিত। যে যেখানেই যে ইনফরমেশন পায় তা শেয়ার করলে এ ধরনের অপরাধ কিছুটা প্রটেকশন দেওয়া যেতে পারে।
শ্রীলঙ্কায় যে ঘটনা ঘটেছে আমি আশা করি শ্রীলঙ্কার সরকার এটা উদঘাটন করবে এবং আমাদের জানাতে পারবে আসলে কি হয়েছিল। হলি আর্টিজানে সমস্ত কিছু উদঘাটন করে আমরা জানিয়ে দিয়েছি।
তিন বছর আগে ২০১৬ সালের ১ জুলাই গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারিতে জঙ্গি হামলায় ১৭ বিদেশিসহ ২০ জন নিহত হয়েছিলেন, যা ছিল বাংলাদেশে নজিরবিহীন।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ১৭৯ বার

Share Button