» উগ্রবাদের থাবা থেকে আমাদের রক্ষা করতে পারে বাঙালি সংস্কৃতি

প্রকাশিত: ২৫. নভেম্বর. ২০১৮ | রবিবার

কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের (সিটিটিসি) প্রধান মনিরুল ইসলাম বলেছেন,উগ্রবাদের থাবা থেকে আমাদের রক্ষা করতে পারে বাঙালি সংস্কৃতি । যারা লালন-রবীন্দ্রনাথের গান শোনে তারা কখনোই জঙ্গিবাদে জড়াতে পারে না। বিভিন্ন দেশে মুসলিমরা বঞ্চনার শিকার হচ্ছে। সেই বোধ থেকে কিছু তরুণ উগ্রবাদে জড়িয়ে যাচ্ছে ভুল ব্যখ্যার কারণে । তারা জঙ্গিবাদের দিকে ধাবিত হচ্ছে । এসব বঞ্চনার প্রতিবাদ আইনগতভাবে আমরা অবশ্যই করব। কিন্তু এর কারণে কেন আমরা প্রতিবেশিকে হত্যা করবো কেন ?

শনিবার (২৪ নভেম্বর) রাজধানীর সিরডাপ মিলনায়তনে ‘সহিংস উগ্রবাদ বিরোধী যুব সংলাপে’ প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। ইউএনডিপির সহায়তায় এ সংলাপের আয়োজন করে সিটিটিসি।

কারাগারে গিয়েও অনেক সাধারণ অপরাধী উগ্রবাদে জড়িয়ে যেতে পারে মন্তব্য করে
মনিরুল ইসলাম বলেন, একজন সাধারণ অপরাধী যদি কোনো জঙ্গির সঙ্গে কারাগারে পাশাপাশি থাকে তাহলে সেই সাধারণ অপরাধী উগ্রবাদে জড়িয়ে যেতে পারে। এজন্য কারাগারগুলোতে কাউন্সেলিংয়ের প্রয়োজন রয়েছে।

ইসলামে জোর-জবরদস্তির জায়গা নেই উল্লেখ করে তিনি বলেন, নাগরিক হিসেবে প্রত্যেকের এই ভ্রান্ত মতবাদের বিরুদ্ধে কাজ করার দায়িত্ব রয়েছে। ইতোমধ্যে আমরা সাসপেক্টেড উগ্রবাদী মতবাদে জড়িয়ে যেতে পারে এমন তরুণদের সঙ্গে আলোচনা করেছি। বিভিন্ন অভিযানে যারা মারা গেছে তাদের পরিবারের সঙ্গেও বসেছি।

ইউএনডিপির পক্ষে রবার্ট স্টোরম্যান বলেন, পরিসংখ্যানের দিক থেকে পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের তুলনায় বাংলাদেশে উগ্রবাদের মাত্রা কম। র‌্যাংকিংয়ে বাংলাদেশ ২২তম পর্যায়ে রয়েছে। গবেষণালব্ধ ফলাফল অনুযায়ী কোনো নির্দিষ্ট শ্রেণির মানুষ জঙ্গিবাদে জড়ানোর প্রমাণ নেই। যেকোন শ্রেণি-পেশার মানুষ উগ্রবাদে জড়াতে পারে। এ কারণে সামাজিক প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা নেওয়া কঠিন। সামান্য কিছু সংখ্যক মানুষ উগ্রবাদে জড়ালেও এর ব্যপ্তিটা বিশাল।

সংলাপে কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ের বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীরা অংশ নেয়। উগ্রবাদে জড়ানোর কারণ সম্পর্কে ভিকারুননিসা স্কুল অ্যান্ড কলেজের একাদশ শ্রেণির শিক্ষার্থী সাবিরা সুলতানা চামেলী বলেন, আমরা সমসাময়িক ঘটনা সম্পর্কে সঠিক জ্ঞান রাখি না। বিভিন্ন বিষয়ে গুজব ছড়ানোর প্রভাব ফেলে আমাদের ওপর। তাই আমাদের কাছে সঠিক তথ্য পৌঁছানোর ব্যবস্থা করতে হবে।

সংলাপে মিডিয়া ব্যক্তিত্ব মেহের আফরোজ শাওন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী অধ্যাপক শবনম আজিম, মনোরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. ফারজানা রহমানসহ জঙ্গিবাদ নিয়ে কাজ করা বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের সাংবাদিকরা অংশ নেন।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৮৯ বার

Share Button

Calendar

February 2019
S M T W T F S
« Jan    
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
2425262728