» এবার ঈদে বাড়ি ফেরার তাড়া নেই

প্রকাশিত: ৩০. জুলাই. ২০২০ | বৃহস্পতিবার

এবার ঈদে বাড়ি ফেরার তাড়া নেই । রাজধানী থেকে প্রতিবছর লাখ লাখ মানুষের গ্রামে ফেরার চিত্র চিরায়ত হয়ে উঠলেও এবার মহামারীর মধ্যে তা দেখা যাচ্ছে না।

ভাইরাস সংক্রমণের আশঙ্কার পাশাপাশি এই সংকটে আয়-উপার্জনে টান পড়ে টাকার টানাটানি এবং দেশের বিস্তীর্ণ এলাকা বন্যা কবলিত হওয়ায় অনেকেই এবার বাড়ি যাচ্ছেন না।

ঈদের ছুটিতে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের কর্মস্থল না ছাড়ার নির্দেশনার পাশাপাশি পোশাক শ্রমিকদেরও গ্রামে না যাওয়ার পরামর্শ রয়েছে সরকারের।

তাই এবার ঈদে ঢাকা শহর অন্যান্যবারের মতো ফাঁকা হবে না বলে মনে করছেন অনেকে।

ঢাকার বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের সঙ্গে কথা বলে কোরবানির ঈদ নিয়ে তাদের এ রকম ভাবনা জানা গেছে। এদিকে ঈদের মাত্র দুই দিন আগেও ঢাকার বাস টার্মিনাল, লঞ্চ ঘাট ও ট্রেন স্টেশনে অন্যান্য সময়ের মতো ভিড় দেখা যাচ্ছে না।

শনিবার কোরবানির ঈদ উদযাপন করবে বাংলাদেশ । শুক্রবার থেকে শুরু হচ্ছে ঈদের ছুটি, এবার ঈদ ও সপ্তাহিক ছুটি একাকার হয়ে গেছে। অন্যান্যবার সরকারি চাকুরেরা অফিস ছুটি নাগাদ অপেক্ষা করলেও এরইমধ্যে অনেকেই স্ত্রী-সন্তানদের গ্রামে পাঠিয়ে দিতেন। তবে বুধবারও কমলাপুর রেল স্টেশন, গাবতলী, মহাখালী ও সায়েদাবাদ বাস টার্মিনাল এবং সদরঘাট লঞ্চ টার্মিনালে গিয়ে সে রকম ভিড় দেখা যায়নি।

গত বছরের ঈদযাত্রার সাথে এবারের পরিস্থিতির তুলনামূলক চিত্র তুলে ধরে পেট্রোল পাম্পের কর্মকর্তা মঞ্জুরুল ইসলাম বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “এবার ঢাকা থেকে মানুষজন গ্রামে যাচ্ছে কম। তার একটা উদাহরণ আপনাকে দিতে চাই। গত বছরের ঈদে আমি বরিশাল যেতে ১৩ দিন আগে লঞ্চের কেবিন বুক করেছিলাম। এবার ওই লঞ্চের আমার পরিচিত একজন কর্মচারী গতকাল আমাকে টেলিফোন করে বলল, ভাই এবার কি বাড়ি যাইবেন না? লঞ্চে টিকেটের অভাব নাই, কেবিন বুকিংয়ের প্রয়োজন হইব না। আইলেই কেবিন পাইবেন।”

ট্রেনের অবস্থাও একই রকম বলে জানালেন নীলফামারীর বাসিন্দা রেজাউল করিম, যিনি ঢাকায় বসুন্ধরা মার্কেটে সেলসম্যানের চাকরি করেন।

তিনি বলেন, সে যে কি ঝক্কি-ঝামেলা ট্রেনের টিকেটের জন্য, কালোবাজারিদের কাছ থেকে টিকেট কিনতে হত। এখন টাকাও লাগে না, অটোমেটিক টিকেট পাওয়া যায়। কারণ কী জানেন?

এবার ঈদে মানুষজন বাড়ি যাচ্ছে না। মানুষের হাতে টাকা-পয়সা কম। খোঁজ নিয়ে দেখেন অনেকে বেতন পায়নি, বোনাস পায়নি। তাই এখন ট্রেনের টিকেট পাওয়ার সমস্যা নেই। আপনি যখন যাবেন, টিকেট পাবেন।

রেলওয়ের কর্মী হান্নান মাসুদ বলেন, ঢাকা খেকে মানুষ যাচ্ছে কম। এখন ট্রেনের টিকিটও পাওয়া যাচ্ছে। আজকে যাবেন ২টার ট্রেন, ৪টার ট্রেন- টিকেট পাবেন।

প্রতিবছর ঈদে রাজধানী থেকে কতো সংখ্যক মানুষ গ্রামে যান তার কোনো পরিসংখ্যান নেই। তবে নিম্ন ও নিম্ন মধ্যবিত্ত শ্রেণির বহু মানুষ পরিবার নিয়ে গ্রামে গিয়ে ঈদের ছুটি কাটান। এজন্য দেখা যায়, ঈদের ছুটিতে রাজধানী ঢাকা একেবারে ফাঁকা দেখা যায়, মানুষের চলাচলও থাকে খুব কম। রিকশা, অটোরিকশা চলাচলও কমে যায়, বেশি থাকে প্রাইভেটকার। এই সময়ে গণপরিবহন কমে মুক্তি মেলে সারা বছরের অসহনীয় যানজটের।

তবে এবার ঈদের ছুটিতে ঢাকার অবস্থার এমন আমূল পরিবর্তন নাও হতে পারে বলে মনে করছেন অনেকে।
গত বছর ঈদের ছুটিতে ঢাকাকে যেমন ফাঁকা দেখা গেছে, এবার আমরা ঢাকাকে সেভাবে দেখতে পারব না বলে আমার মনে হচ্ছে।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ১৮৪ বার

Share Button

Calendar

October 2020
S M T W T F S
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031