» করোনাভাইরাসে আক্রান্ত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা সারা বিশ্বে ৩ কোটি ছাড়িয়ে গেছে

প্রকাশিত: ১৮. সেপ্টেম্বর. ২০২০ | শুক্রবার

চীনের উহান শহর থেকে সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়া নতুন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত শনাক্ত রোগীর সংখ্যা ৩ কোটি ছাড়িয়ে গেছে।

জন্ হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য থেকে জানা যায়, শুক্রবার পর্যন্ত সারা বিশ্বে ৩ কোটি ৬৭ হাজার ৭৫৮ জন রোগী শনাক্ত হয়েছে। মারা গেছেন ৯ লাখ ৪৪ হাজার ৮৫৬ জন।

সবচেয়ে বেশি রোগী শনাক্ত হওয়ার তালিকায় প্রথম তিন দেশ যথাক্রমে যুক্তরাষ্ট্র, ভারত ও ব্রাজিল। গত ফেব্রুয়ারি-মার্চে ইউরোপের দেশগুলোতে ভয়াবহ রূপ নিয়ে ছড়িয়ে পড়েছিল এই ভাইরাস। জুলাই-অগাস্টের দিকে সেখানে পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হলেও এখন আবার সংক্রমণ বাড়তে শুরু করেছে।

ইউরোপে আসন্ন শীতে পরিস্থিতি আবারও মারাত্মক রূপ নিতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। যা ঠেকাতে ইউরোপের দেশগুলোর সরকার নানা ব্যবস্থার কথা ভাবছে।

যুক্তরাজ্য সরকার আবারও স্বল্প মেয়াদে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা এবং চলাচলেও উপর বিধিনিষেধ আরোপের কথা বিবেচনা করছে।

ইউরোপের বাইরে ইসরায়েল দেশজুড়ে দ্বিতীয় দফায় লকডাউন জারি করতে যাচ্ছে। শুক্রবার রাত থেকে মধ্যপ্রাচ্যের এ দেশটিতে দ্বিতীয় দফায় লকডাউন কার্যকর হবে। উন্নত দেশগুলোর মধ্যে ইসরায়েলই প্রথম দ্বিতীয় দফায় ভাইরাসের সংক্রমণ আটকাতে লকডাইনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে।
ক্ষতিগ্রস্ত দেশের তালিকায় আমেরিকা

রোগী শনাক্তের দিক দিয়ে তালিকায় এক নম্বরে আছে যুক্তরাষ্ট্র। সেখানে ৬৬ লাখের বেশি রোগী শনাক্ত হয়েছে, মারা গেছেন ১ লাখ ৯৭ হাজার ৬৩৩ জন। যদিও গত জুলাইয়ের পর দেশটিতে দৈনিক রোগী শনাক্তের সংখ্যা কমতে শুরু করেছে।

মারাত্মক সংক্রামক এ রোগকে প্রথমে পাত্তা না দেয়া যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডনাল্ড ট্রাম্প দেশের বর্তমান পরিস্থিতিতে অস্বস্তিকর অবস্থায় পড়েছেন। এ সপ্তাহের শুরুতে অবশ্য তিনি বলেছেন, তিনি কোভিড-১৯ রোগটিকে কম গুরুত্ব দিয়েছেন কথাটা ঠিক না। যদিও তার আগের সাক্ষাৎকারের ভিডিওগুলো সে কথা বলছে না।

ভারতে শনাক্ত রোগীর সংখ্যা এ সপ্তাহে ৫০ লাখ ছাড়িয়েছে। বিশ্বের অন্য যেকোনো দেশের তুলনায় ভারতে এ রোগ বিস্তারের গতি দ্রুত বলে জানায় বিবিসি। সম্প্রতি সেখানে দৈনিক শনাক্তের সংখ্যা লাখ ছুঁয়ে যাচ্ছে এবং প্রায় প্রতিদিনই শনাক্তের নতুন রেকর্ড হচ্ছে। এরই মধ্যে ভারতে এ রোগ ৮০ হাজারের বেশি মানুষের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে।

শনাক্তের তালিকায় তিন নম্বরে থাকা ব্রাজিলে মোট রোগী ৪৪ লাখের বেশি। সেখানে এ রোগে আক্রান্ত হয়ে এক লাখ ৩৪ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছেন। মৃত্যুর দিক দিয়ে যা দ্বিতীয় সর্বোচ্চ।

ট্রাম্পের মত ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জেইর বোলসোনারো শুরুতে কোভিড-১৯ কে সাধারণ সর্দি-জ্বর বলে বর্ণনা করে তেমন গুরুত্ব দেননি, এমনকি তিনি লকডাউন বিরোধী একটি র‌্যালিতেও অংশ নিয়েছিলেন। পরে গত জুলাইয়ে তিনি নিজে স্ত্রীসহ এ রোগে আক্রান্ত হন।

কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা ইউরোপে

ইউরোপে কোভিড-১৯ রোগীর সংখ্যা যেভাবে আবার বাড়তে শুরু করেছে তা মহাদেশটির জন্য ‘সতর্ক বার্তা’ বলে মনে করছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা-ডব্লিউএইচও।

বৃহস্পতিবার কোপেনহেগেনে ডব্লিউএইচও-র আঞ্চলিক পরিচালক হান্স ক্লুগ বলেন, গত দুই সপ্তাহে ইউরোপের বেশিরভাগ দেশে নতুন শনাক্ত রোগীর সংখ্যা দ্বিগুণ হয়ে গেছে।

‘‘শুধু গত সপ্তাহতেই ইউরোপ জুড়ে তিন লাখ নতুন রোগী শনাক্ত হয়েছে। যা গত মার্চের সাপ্তাহিক মোটে শনাক্তের সংখ্যাকেও ছাড়িয়ে গেছে।”

মহামারী শুরু পর ইউরোপে এখন পর্যন্ত ৫০ লাখের বেশি রোগী শনাক্ত হয়েছে। মারা গেছেন ২ লাখ ২৮ হাজারের বেশি মানুষ।

টিকার জন্য হাহাকার

করোনাভাইরাসের হাত থেকে মুক্তি পেতে বিভিন্ন দেশ এবং কোম্পানি দিন-রাত এক করে একটি কার্যকর এবং নিরাপদ টিকা আবিষ্কারের চেষ্টা করে যাচ্ছে।

ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রে আগামী ৩ নভেম্বরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের আগেই টিকা হাতে পাওয়ার কথা ঘোষণা করেছেন। যদিও অনেক স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ বলছেন, বাস্তবে এমনটা হওয়ার সম্ভাবনা অনেক কম।

প্রথম দেশ হিসেবে রাশিয়া গত অগাস্টে স্থানীয়ভাবে একটি টিকা সাধারণ প্রয়োগের অনুমতি দিয়েছে। চূড়ান্ত পরীক্ষা না করেই ওই টিকার সাধারণ প্রয়োগের অনুমতি দেওয়ায় খোদ রাশিয়ার চিকিৎসকরা নিজেদের আস্থাহীনতার কথা জানিয়েছেন।

কিন্তু রুশ বিজ্ঞানীদের দাবি, তাদের টিকায় শরীরে রোগপ্রতিরোধ ক্ষমতা তৈরির প্রমাণ পাওয়া গেছে।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ১২৮ বার

Share Button

Calendar

October 2020
S M T W T F S
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031