» কুলাউড়ায় ট্রাক-সিএনজি মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-২ আহত-৫

প্রকাশিত: ১৭. অক্টোবর. ২০১৯ | বৃহস্পতিবার


মোঃ আব্দুল কাইয়ুম, মৌলভীবাজার:
কুলাউড়ায় ট্রাক-সিএনজি চালিত অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে ঘটনাস্থলে সোনালী পাল (৮) নামে এক কিশোরী নিহত হয়। পরবর্তীতে গুরুতর আহত কুলাউড়া শহরের ব্যবসায়ী খায়রুল ইসলাম এর স্ত্রী শামিমা আক্তার নাসরীন (৪৫) নামে এক গৃহবধু মৌলভীবাজার সদর ২৫০ শয্যা হাসপাতালে নিয়ে আসার পথে মারা যান।


বৃহস্পতিবার (১৭ অক্টোবর) সন্ধ্যা ৭টার দিকে শহরের পৌর এলাকার সাইন বোর্ডের কাছে এই মর্মান্তিক দুর্ঘটনা ঘটে।

এঘটনায় সিএনজি অটোরিকশার চালকসহ আরও ৫ যাত্রী আহত হয়েছে। আহতদের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় সবাইকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। আহতরা হলেন নিহত সোনালী পালের বাবা নিতাই পাল (৪০), মা ঝুমা পাল (৩৫), কুলাউড়া শহরের জয়পাশার রেনু মালাকার (৪০), মাগুরার বাসিন্দা নার্গিস আক্তার (৪০), জুড়ী উপজেলার আলী হোসেন (২০) ও সিএনজি অটোরিক্সা চালক মো. শাকিল (২০)।
নিহতদের মধ্যে কিশোরী সোনালী পালের বাড়ী কমলগঞ্জ উপজেলার হরিপুর গ্রামে আর শামীমা আক্তার নাসরীন এর বাড়ী কুলাউড়া শহরের দক্ষিণ বাজার এলাকায় বলে জানা গেছে। এক সন্তানের জননী শামীমা আক্তার নাসরীন ঐ এলাকার ব্যবসায়ী খায়রুল ইসলামের স্ত্রী।

সূত্রে জানা যায়, জুড়ী থেকে ছেড়ে আসা সিএনজি অটোরিক্সা (নং মৌ.বাজার থ ১১-১০ ৮৯) কুলাউড়া পৌরসভার সীমানা সাইনবোর্ড এলাকায় বিপরীত দিক থেকে আসা বালুভর্তি একটি ট্রাক (নং মৌ.বাজার ড ১১-০৪৪৮) এর সাথে মুখোমুখি ধাক্কা খায়। এতে সিএনজি অটোরিকশাটি ধুুমড়ে মুচরে যায়। আর তাতেই ঘটনাস্থলেই নিহত হয় সোনালী পাল নামের ৮ বছর বয়সী এক কিশোরীর ও পরবর্তীতে গুরুতর আহত শামীমা আক্তার নাসরীন নামের এক গৃহবধুকে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে আসার পথে মারা যান।
কুলাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইয়ারদৌস হাসান দুইজন নিহতের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান ট্রাক চালক পলাতক হওয়ায় তাঁকে আটক করা সম্ভব হয়নি।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ২২০ বার

Share Button

Calendar

June 2020
S M T W T F S
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930