কুলাউড়ায় রবীন্দ্র আগমনের শতবর্ষ উদযাপিত হবে

প্রকাশিত: ২:৫৮ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ৯, ২০১৯

কুলাউড়ায় রবীন্দ্র আগমনের শতবর্ষ উদযাপিত হবে

বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ১৯১৯ সালের নভেম্বরে ট্রেনযোগে সিলেটে যাত্রাপথে কুলাউড়া রেলওয়ে জংশন স্টেশনে রাত্রি যাপন করেছিলেন । এ উপলক্ষে বিশিষ্ট লেখক ও রবীন্দ্র গবেষক অধ্যাপক নৃপেন্দ্র লাল দাশের আহ্বানে কবির কুলাউড়ায় আগমনের শতবর্ষ উদযাপনের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

শনিবার রাতে কুলাউড়া সরকারি কলেজের উপাধ্যক্ষ মোঃ আব্দুল হান্নান এর আহ্বানে কুলাউড়া প্রেসক্লাব সভাপতি এম শাকিল রশীদ চৌধুরীর সভাপতিত্বে এক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় আগামী সপ্তাহের মধ্যে সংশ্লিষ্ট সবাইকে নিয়ে বৃহৎ পরিসরে কুলাউড়া পৌরমিলনায়তনে এক সভা আহবানের মাধ্যমে শতবর্ষ উদযাপন কমিটি গঠনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
সভায় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন কুলাউড়া সরকারি কলেজের উপাধ্যক্ষ মোঃ আব্দুল হান্নান, জুড়ি টিএন খানম সরকারি কলেজের উপাধ্যক্ষ মোঃ ফরহাদ আহমদ, এম এ গনী আদর্শ কলেজের অধ্যক্ষ (ভারঃ) মোঃ শাহ আলম সরকার, কবি শহীদ সাগ্নিক, কুলাউড়া নবীন চন্দ্র সরকারি মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মোঃ আমির হোসেন, কুলাউড়া সাংবাদিক সমিতির সভাপতি মোক্তাদির হোসেন, দৈনিক মানব জমিনের প্রতিনিধি আলাউদ্দিন কবির, হাকালুকি পত্রিকার বার্তা সম্পাদক করিম বাচ্চু ও সাংবাদিক সুমন আহমদ প্রমুখ।

উল্লেখ্য বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ১৯১৯ সালের নভেম্বর মাসে ৩ দিনের সফরে ভারতের করিমগঞ্জ থেকে ট্রেনযোগে সিলেট যাত্রাপথে কুলাউড়া রেলওয়ে জংশন স্টেশনে ৪ নভেম্বর রাত্রি যাপন করে পরের দিন সকালে সিলেটের উদ্দেশ্যে যাত্রা করেন। এ ঐতিহাসিক মুহুর্তকে স্মৃতিচারণ ও বর্তমান প্রজম্মকে জানান দেয়ার জন্য এ উদ্যোগ নেয়া হয়েছে বলে উপাধ্যক্ষ আব্দুল হান্নান জানান।