» জিয়া সহ সকল সেক্টর কমান্ডার ৫০০ টাকা বেতনে কাজ করতেন ঃ তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত: ০৯. জুলাই. ২০১৯ | মঙ্গলবার

ইউরোপ সফররত তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেন, ‘জিয়াউর রহমান বেঁচে থাকার সময় কখনও নিজেকে স্বাধীনতার ঘোষক বলেননি। তিনি সহ সকল সেক্টর কমান্ডার ৫০০ টাকা বেতনে কাজ করতেন। ’

শনিবার সন্ধ্যায় ব্রাসেলসে ব্রিজ ইউনিভার্সিটি অভ্ ব্রাসেলসের মিলনায়তনে আয়োজিত আওয়ামী লীগের ৭০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে বেলজিয়াম আওয়ামী লীগ আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির ভাষণে তিনি বলেন, ‘প্রত্যেক প্রবাসী বিদেশে বাংলাদেশের প্রতিনিধি। দেশপ্রেমই তাদেরকে ঐক্যবদ্ধ রাখতে পারে। আর সকল ভেদাভেদ ভুলে দেশের জন্য কাজ করার মধ্যেই জীবনের সার্থকতা।’ এসময় প্রবাসীদের ভোটাধিকার প্রসংগে তিনি বলেন, ‘প্রবাসীদের ভোটাধিকার নিশ্চিত করার জন্য বাংলাদেশ সরকার সমস্ত ব্যাবস্থা নিচ্ছে।’

সভায় ব্রিজ ইউনিভার্সিটি অভ্ ব্রাসেলসের প্রাক্তন শিক্ষার্থী ও সে বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক ছাত্র সংগঠনের সাবেক প্রেসিডেন্ট ড. হাছান মাহমুদকে নাগরিক সম্বর্ধনাও দেয়া হয়। মন্ত্রী তার বক্তব্যে ব্রাসেলসে শিক্ষাজীবনের স্মৃতিচারণ করেন।

বেলজিয়াম আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল হকের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর চৌধুরী রতনের সঞ্চালনায় সভায় বিশেষ অতিথি ছিলেন রাষ্ট্রদূত শাহাদাত হোসেন এবং সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সভাপতি এম . নজরুল ইসলাম। সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান প্রধান বক্তা হিসেবে এবং ফ্রান্স আওয়ামী লীগের সভাপতি বেনজির আহমেদ সেলিম আমন্ত্রিত অতিথি হিসেবে সভায় বক্তব্য রাখেন।

‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের গণমাধ্যম এখন স্মরণকালে সবচেয়ে বিকশিত ও প্রসারমান উল্লেখ করে ড, হাছান বলেন, ‘বাংলাদেশ টেলিভিশনের সমস্ত অনুষ্ঠান আগামী মাস থেকে সমগ্র ভারতে দেখা যাবে, যা দেশের মানুষের দীর্ঘদিনের দাবি ছিল।’

বাংলাদেশ আজ উন্নত বিশ্বের অংশ হবার দিকে এগিয়ে যাচ্ছে উল্লেখ করে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আগামী কয়েক বছরে বাংলাদেশে ১০০ ভাগ এলাকায় বিদ্যুৎ যাবে।’ আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক ড, হাছান এসময় সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সাম্প্রতিক কর্মকাণ্ডের প্রশংসা করে বলেন, ‘সর্ব ইউরোপিয়ান আওয়ামী লীগের সভাপতি এম. নজরুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক মজিবুর রহমানের নেতৃত্বে ইউরোপে আওয়ামী লীগের ঐক্য অটুট থাকবে।’
সভা ও বেলজিয়াম আওয়ামী লীগের সভাপতি শহিদুল হক বলেন, ‘ডঃ হাছানের দিক নির্দেশনাযতেই এক এগারোর সময় গ্রেপ্তার হওয়া শেখ হাসিনার মুক্তির জন্য ইউরোপে আন্দোলন শুরু হয়।’

ফ্রান্স আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি এম এ কাশেম, আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দের মধ্যে আখতারুজ্জামান, দাউদ খান সোহেল, জহির খান সোহেল, বিধান দেব ,হুমায়ুন মাসুদ হিমু, রাসেল আহমেদ সহ আরো অনেকে বক্তব্য রাখেন। ইউরোপের অন্যান্য দেশ থেকেও দলীয় নেতাকর্মীরা এই সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে যোগ দেন। সভাশেষে সাংস্কৃতিক পর্বে স্থানীয় শিশুরা নৃত্য এবং লন্ডন থেকে আগত শিল্পী শতাব্দী কর সংগীত পরিবেশন করে।

এর আগে তথ্যমন্ত্রী ইউরোপিয়ান এক্সটার্নাল একশন সার্ভিসের ম্যানেজিং ডিরেক্টর অর্থাৎ ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ) এর পররাষ্ট্র বিভাগের সচিব গানার ভাইগ্যান্ডের (Gunnar Wiegand) সাথে বৈঠকে তথ্য ও সম্প্রচার জগতের আধুনিক ও নিরাপদ ব্যবস্থাপনা নিয়ে আলোচনা করেন।

সফরশেষে ৯ জুলাই মঙলবার তথ্যমন্ত্রীর দেশে ফেরার কথা।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৮৮ বার

Share Button

Calendar

July 2019
S M T W T F S
« Jun    
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
28293031