ডাঃ শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরীর পক্ষ থেকে শিক্ষার্থীদের মধ্যে “চায়না দর্শন” বইটি বিতরণ

প্রকাশিত: ১১:০৩ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৬, ২০১৯

ডাঃ শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরীর পক্ষ থেকে শিক্ষার্থীদের মধ্যে “চায়না দর্শন” বইটি বিতরণ


মোহাম্মদ অলিদ সিদ্দীকী তালুকদার

পুরোদমে জমে ওঠেছে বিদায়ের শেষ মুহুর্তে অমর একুশে বইমেলা । দিন চলে যাচ্ছে আর ক্রেতা বাড়ছে। সাধারণত মেলার শুরুতে যারা আসেন তারা কিন্তুু বই কেনার চেয়ে বেশি সময় ব্যয় করেন ঘোরাঘুরিতে । কিন্তুু শেষ সময়ে এসে দর্শনার্থীদের চাইতে ক্রেতার সংখ্যাই বেশি বৃদ্ধি পাচ্ছে। ফেব্রুয়ারি মাসের তৃতীয় সপ্তাহ পাড় হওয়ার পর পরই মেলায় ক্রেতাদের ভিড় বাড়া শুরু হয়েছে । বিশেষ করে ২১ ফেব্রুয়ারি থেকে ক্রেতারা বেশি ভিড় জমান। প্রতিযোগিতা দিয়ে কেনেন বই। তরুণ’ কিশোর, শিশু- বৃদ্ধ থেকে শুরু করে সব বয়সের মানুষই বই কেনেন। সব শ্রেণী পেশার মানুষের মধ্যে একটি সেতুবন্ধন কাজও করে এই বইমেলা । তবে এবার হঠাৎ জড়ো হাওয়া ও প্রচন্ড বৃষ্টির কারণে মেলার স্টল ক্ষতিগ্রস্ত হয় মেলার প্রায় অর্ধশত স্টল ।

এবারের একুশে বইমেলায় প্রকাশনা সংস্থার অন্যতম সুখ্যাতি প্রতিষ্ঠান দি ইউনিভার্সেল একাডেমি প্রতিবছরের ন্যায় এবারও পাঠক দর্শকশ্রোতাদের জন্য দেশের প্রতিথযশা দেশবরেণ্য লেখকদের খুবই জনপ্রিয় বই নিয়ে এসেছে। এর মধ্যে একটি বই হচ্ছে ” চায়না- দর্শন ” লেখক চ্যানেল বাংলাভিশনের সিনিয়র রিপোর্টার ইমরুল কায়েস, প্রকাশক ডিইউজে সদস্য- মোহাম্মদ অলিদ সিদ্দিকী তালুকদার, সার্বিক তত্ত্ববধায়ক দি ইউনিভার্সেল একাডেমির মহা- পরিচালকঃ এ এস এম ভুঁইয়া শিহাব। বইটিতে গুরুত্বপুর্ণ আকর্ষণ হচ্ছে বইটির ভূমিকা লিখেছেন এশিয়া মহাদেশের প্রখ্যাত রাষ্ট্রবিজ্ঞানী, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচায্য ( ভিসি ) প্রফেসর এমেরিটাস ড. এমাজউদ্দীন আহমদ, সেই সাথে গুরুত্বপুর্ণ দুটি অভিমত দিয়েছেন জাতীয় প্রেস ক্লাবের সভাপতি ও দৈনিক যুগান্তর পত্রিকার সম্পাদক সাইফুল আলম এবং বাংংলাদেশ প্রেস ইস্টিটিউট ( পিআইবি ) সাবেক মহাপরিচালক ও বাংলাভিশন চ্যানেলের অ্যাডভাইজার ( এনসিএ) সিনিয়র সাংবাদিক ড. আবদুল হাই সিদ্দিক। বইটিতে লেখক অত্যন্ত তথ্যবহুল দর্শন’ পুর্ণ বিভিন্ন বিষয়ে লেখাগুলি খুবই চমৎকার ভাবে ফুঁটিয়ে তুলতে সক্ষম হয়েছেন । বইটি এবারের বইমেলায় অন্যান্য লেখকদের জনপ্রিয় বইয়ের সাথে এই ” চায়না-দর্শন” বইটিও হাটিহাটি পাঁ-পাঁ করে অন্যান্য বইয়ের মিছিলের সাথে জনপ্রিয়তা অর্জন করে নেয়।

বইটি প্রকাশের পর পরই ধিরে ধিরে তার জনপ্রিয়তার দিকে যখন তার পথচলা শুরু করে তখনই মেধাবী কিছু সংখ্যক শিক্ষার্থীদের নজড়ে বইটি নাড়া দেয় তাদের কাছে অত্যন্ত জনপ্রিয় মুক্তারমালার ন্যায় পাঠকপ্রিয় হিসেবে। কিন্তুু মুল বিষয়টি হচ্ছে এই শিক্ষার্থীদের নজড়ে নাড়া দিলে কি আর হবে। এ সংখ্যক মেধাবী তরুণ’ শিক্ষার্থীরা সাহস করে বা অর্থ সংকটের কারনে তাদের জনপ্রিয় এই বইটি ” চায়না- দর্শন ” মুল্যবান বইটি কিনে নিতে তাদের সেই- শক্তি ও সাহসিকতাপুর্ণ মনোভাব স্বপ্নের পরিরেখা পুর্ণ করতে অপুরণীয় হয়ে ওঠেছে । ঠিক সেই- মুহুর্তে এই শিক্ষার্থীদের স্বপ্নমুখর সংবাদটি চলে এসে পৌচ্ছে দেশের এক স্বনামধন্য শিক্ষাবিদ, সমাজসেবী ও বণাট্য রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব বিএনপি’র কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির অন্যতম সদস্য- আধ্যাত্নিক রাজধানী খ্যাত দেশের পুর্ব অঞ্চল ৩৬০ আউলিয়ার পূর্ণ্যভুমি সিলেটের স্বনামখ্যাত ব্যক্তিত্ব বহু শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের রুপকার বিশিষ্ট চিকিৎসক অধ্যাপক ডাক্তার শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরীর নিকট। তিনি শিক্ষার্থীদের মনোবল ইচ্ছাকে পুর্ণ করে দেওয়ার উদ্দ্যোগ নেন । সোমবার ২৫ ফেব্রুয়ারি বইমেলায় প্রকাশনা সংস্থা দি ইউনিভার্সেল একাডেমির স্টল থেকে ডাঃ শাহরিয়ার চৌধুরী তার প্রতিনিধি হিসেবে জাতীয় প্রেস ক্লাবের সিনিয়র সদস্য ও ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন ( ডিইউজের) সফল সাবেক সাধারণ সম্পাদক বিশিষ্ট সাংবাদিক নেতা জাহাঙ্গীর আলম প্রধানের মাধ্যমে ” চায়না দর্শন ” বই ২৫টি শিক্ষার্থীদের জন্য ক্রয়করে ডা: শাহরিয়ারের পক্ষে রাতে তিনি রাজধানীর এ্যালিফ্যান্ট রোডে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ( ভিসি ) প্রফেসর এমেরিটাস ড. এমাজউদ্দীন আমহদের নিকট হস্তান্তর করেন।

অধ্যাপক ডা: শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরীর এই উদ্দ্যোগকে স্বাগতম ও কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে ড. এমাজউদ্দীন বলেন আমার প্রিয় কিছু সংখ্যক মেধাবী শিক্ষার্থীরা এবারের একুশে বইমেলায় দেশের স্বনামখ্যাত লেখকদের যে সমস্ত বই প্রকাশিত হয়ে মেলায় এসেছে সেই- বইগুলোর পাশাপাশি ” চায়না দর্শন ” বইটি এই শিক্ষার্থীদের মাঝে একটি আর্কষক ও স্পৃহাসৃষ্টির মাধ্যমে তাদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে ওঠে। কিন্তুু বইটির মুল্য দামের তুলনায় এই শিক্ষার্থীরা তাদের প্রিয় বইটি ক্রয় করে নিয়ে পাঠ্যবিষয় অধ্যায়রত করতে সক্ষম ছিলেন না। এমতাবস্থায় সিলেটের স্বনামখ্যাত বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ, সমাজসেবী ও রাজনৈতিক ব্যক্তি আমার অত্যন্ত একজন প্রিয়ভাজন সন্তানতুল্য দক্ষ শিক্ষক ও সংঘটক সিলেটের এক সম্ভ্রান্ত পরিবারের সন্তান অধ্যাপক ডা: শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরীর এই সহযোগিতা এক বিরল দৃষ্টান্তমুলক মাইল পলক হিসেবে কাজ করবে । এ ধরনের সহযোগিতায় শিক্ষার প্রসারের ক্ষেত্রে দেশের মেধাবী নতুন’ প্রজন্ম গরীর অসহায় শিক্ষার্থীদের পাশে দাঁড়ানোর জন্য অন্যান্য ব্যক্তিবানদের প্রতি আহবান জানা এমাজউদ্দীন আহমদ।
বইটি একুশে বইমেলা সোহরাওয়ার্দী মাঠে স্টলঃ- ৫৫৩ – ৫৫৪ – ৫৫৫ – ৫৫৬ – নাম্বার প্রকাশনায় পাওয়া যাবে।

Calendar

December 2020
S M T W T F S
 12345
6789101112
13141516171819
20212223242526
2728293031  

http://jugapath.com