» রুপালী পর্দার তরুন আত্নপ্রত্যয়ী মডেল স্বপ্নীল সরকার

প্রকাশিত: ১৮. মে. ২০১৮ | শুক্রবার

অলিদ তালুকদার :

রূপালী পর্দার তরুন-উদ্যমী প্রতিশ্রুতিশীল মডেল স্বপ্নিল সরকার নতুন প্রজন্মের কাছে আইডল হিসেবে যাত্রা শুরু করেছেন। সেই ছোটবেলা থেকেই যিনি সপ্ন দেখতেন রূপালী পর্দায় নিজের উপস্থিতির জানান দেওয়ার। আর সে লক্ষে কাজও করেছেন বহুদূর। এগিয়ে যাচ্ছে অভিরাম গতিতে।

এই সময়ের প্রতিশ্রুতিশীল তরুণ অভিনেতা এম স্বপ্নিল সরকার লেখাপড়া করেছেন আইন বিষয়ে। ঢাকা জজ কোর্টে একজন আইনজীবীর অধীনে নিয়মিত অনুশীলনও করছেন। মেধা ও যোগ্যতায় যেমন আইন পেশায় দিন দিন নিজেকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন, তেমনি ভিন্ন এক স্বপ্ন ও আকাঙ্খা পূরণে নিরলস কাজ করে যাচ্ছেন। পাশাপশি একজন অভিনেতা হিসেবে ক্যারিয়ারে নিজেকে প্রতিষ্ঠিতা করতে করছেন নিরলস পরিশ্রম। উদ্দ্যেশ্য, অভিনয় গুণে টেলিভিশন বা বড় পর্দা বিমুখ দর্শকদের ফের ফিরিয়ে আনা।

স্বপ্নিল সরকার বলেন, ‘ভাল অভিনয় গুণের মাধ্যমে মিডিয়া বিমুখ মানুষদের আবারো ফিরিয়ে নেয়া সম্ভব।’ শুধু যে তিনি স্বপ্ন দেখছেন তা নয়, ইতিমধ্যে এই অভিনেতা রুপালী জগতে নিয়মিত হওয়া শুরু করেছেন। ২০১৪ সালে মডেলিং দিয়ে অভিনেতা হওয়ার স্বপ্নের বীজ বুনা শুরু করেন তিনি। এরপর দেশের বড় বড় পোশাক ব্রান্ডের ফটোশ্যূট করেছেন, বহুবার হেটেছেন র‌্যাম্পে। কাজ করেছেন বেশ কয়েকটি মিউজিক ভিডিওতে। সর্বশেষ কাজ করেছেন অদৃশ্য ফাদ নামে টেলিফিল্মে। এছাড়া আরো অনেকগুলো কাজ সামনে রয়েছে তার।

প্রায় ৬ ফুট উচ্চতার স্বপ্নিলের শারীরিক কাঠামো বিদেশী কোনো অভিনেতার চেয়ে কম নয়। একজন আইনজীবী হওয়ার পাশাপাশি কেন তিনি অভিনেতা হতে চান? জানতে চাইলে তরুণ এই অভিনেতার আত্মপ্রত্যয়ী জবাব, ”ভাল কিছু কাজ করে সবাইকে তা উপহারের পাশাপাশি মিডিয়া বিমুখ দর্শকদের আবারো ফিরিয়ে নিয়ে আসা এবং দেশকে বিশ্বের সামনে তুলে ধরতে একজন ভাল অভিনেতা হতে চাই। ভাল কিছু কাজের মাধ্যমে তরুণ সমাজকে যে ন্যায়ের পথ দেখানো ও দেশের আইন ব্যবস্থাকে সাধারণ মানুষের কাছে তুলে ধরতে পারি এ নিয়ে কাজ করব।”

স্বপ্নিলের মতে বাংলাদেশের মিডিয়ায় ভাল কিছু কাজ হচ্ছে। তবে তিনি চান ভাল কাজের ধারাবাহিকতা যেন অব্যাহত থেকে আরো ভাল কাজ হয়। বিশেষ করে আইন সম্পর্কে যেন সাধারণ মানুষে বুঝানো হয়।

”প্রতিটা ফিল্মে যেন একটা বার্তা দেওয়া উচিত, অথচ আমাদের দেশে যেসব সিনেমা তৈরি হয় তাতে ভাল কোনো মেসেজ থাকে না। বাস্তবে চলার পথে মানুষের যা শেখা উচিত তার একটা বড় মাধ্যম হিসেবে কাজ করে চলচ্চিত্র। কিন্তু অদ্ভুত হলেও সত্য বেশিরভাগ সিনেমা থেকে শেখার মত কোনো বার্তা পাওয়া যাচ্ছে না। এমন কিছু ফিল্ম তৈরি করা দরকার যা থেকে মানুষ ভাল বার্তা পায়।”

তিনি বলেন, আমি এমন কিছু কাজ করতে চাই, যা থেকে সবাই অনুপ্রাণিত হবে। ভাল কিছু করার মোটিভেশন পাবে। বাস্তব জীবন সম্পর্কে সবাই সঠিক ধারণা পাবে। যা নতুন কিছু হয়ে সবার সামনে আসবে।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৭১৩ বার

Share Button

Calendar

September 2018
S M T W T F S
« Aug    
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
30