» শ্রীমঙ্গল থেকে অবৈধ সেগুন কাঠ জব্দ

প্রকাশিত: ১০. ফেব্রুয়ারি. ২০১৮ | শনিবার

মোঃ আব্দুল কাইয়ুম,মৌলভীবাজার প্রতিনিধি:  শ্রীমঙ্গলের খাঁজা স’মিল থেকে দেরলক্ষ টাকার অবৈধ সেগুন কাঠ জব্দ করেছে শ্রীমঙ্গল মহকুমা বন বিভাগ। শুক্রবার (১০ফেব্রুয়ারী) রাত সাড়ে ১১টার দিকে শ্রীমঙ্গল শহরের সিন্দুরখান সড়কের খাঁজা স’মিল থেকে এসব চোরাই সেগুন কাঠ জব্দ করা হয়।

শ্রীমঙ্গল মহকুমা বন বিভাগের রেঞ্জ কর্মকর্তা মো.আবু তাহের মুঠোফোনে শুক্রবার রাতেই এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, ‘গোপন সংবাদের ভিত্তিতে খাঁজা স’মিল থেকে অবৈধ সেগুন কাঠগুলো জব্দ করে রাতেই বন বিভাগের অফিসে নিয়ে এসেছি।

তিনি আরও বলেন,‘আওয়ামীলীগ নেতা মো.ইউছুফ আলীর মালিকানাধীন খাঁজা স’মিলে প্রায়ই রাতে অবৈধ সেগুনকাঠ মেশিনে কাটা হয়। সেখান থেকে ভোররাতে এসব অবৈধ কাঠ বিভিন্ন জায়গায় চোরাইচালানের মাধ্যমে পাচার করা হয়। এলাকার সচেতনদের তৎপরতায় রাতে অবৈধ প্রায় ৩০ ফুটেরও অধিক সেগুন কাঠ জব্দ করা হয়। যার বাজারমূল্য আনুমানিক প্রায় দেড় লক্ষ টাকা হবে।

এদিকে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক অনেকেই বলেন, ‘এরআগেও একাধিকবার খাঁজা স’মিল থেকে অবৈধ কাঠ আটক করা হয়। সরকারদলীয় প্রভাব দেখিয়ে স’মিল কর্তৃপক্ষ ছাড় পেয়ে যায়। খাঁজা স’মিলের বিরুদ্ধে কোন আইনি তৎপরতা চালানো হয়নি। তবে খাঁজা স’মিলের বৈধতা নিয়ে অনেকেই প্রশ্ন তুলেন।’

স্থানীয় খাঁজা স’মিল মালিক ও আওয়ামীলীগ নেতা মো.ইউছুফ আলীর সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তার ফোন বন্ধ পাওয়া যায়।এব্যাপারে সিলেট বন বিভাগের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মো.মনিরুল ইসলাম মুঠোফোনে বলেন, ‘আমার কাছে এসব অবৈধ সেগুনকাঠের তথ্য ছিল। স’মিল থেকে কাঠগুলো জব্দ করা হয়েছে। তিনি আরও বলেন,‘নিয়মানুযায়ী খাঁজা স’মিলের বিরুদ্ধে বন আইনে মামলার প্রক্রিয়া চলছে।’

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৮৭ বার

Share Button