কমলগঞ্জে যুবতী ধর্ষণ- ২ যুবক আটক 

প্রকাশিত: ৬:২১ অপরাহ্ণ, জুলাই ৯, ২০২১

কমলগঞ্জে  যুবতী ধর্ষণ- ২ যুবক আটক 

মৌলভীবাজার প্রতিনিধিঃ মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জে বোনের বাড়িতে বেড়াতে এসে ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এক যুবতী। যুবতীকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ধর্ষণের অভিযোগে কমলগঞ্জ থানা পুলিশ ২ যুবককে আটক করেছে।

ঘটনাটি ঘটেছে গতকাল বুধবার (৭ জুলাই) দুপুরে। আজ বৃহস্পতিবার (৮ জুলাই) অভিযুক্ত দুই যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

জানা যায়. হবিগঞ্জ জেলার মাধবপুর উপজেলার নোয়াপাড়া এলাকার মীরালাল র‌্যালীর ২৪ বছর বয়সী যুবতী কমলগঞ্জ উপজেলার সীমান্তবর্তী ইসলামপুর ইউনিয়নের কুরমা চা বাগানের কালীবিল এলাকায় বোনের জামাই মুন্না র‌্যালীর বাড়ীতে বেড়াতে আসেন। মেয়েটি প্রতিদিনের ন্যায় বোনের জামাইর বাড়ী থেকে বের হয়ে বাগানে  বেড়াতে বেরিয়েছিল ।

এসময় বুধবার দুপুরে কালীবিল এলাকার পূর্ব পরিচিত ভুট্রো কুর্মীর ছেলে সঞ্জয় কূর্মী (২৫) এর সাথে দেখা হলে বেড়ানোর ছলে বাড়ীর পার্শ্বেই একটি পরিত্যক্ত স্কুল ঘরে নিয়ে যায়। সেখানে সঞ্জয় এর বন্ধু একই এলাকার বানু নায়েকের ছেলে বিকাশ নায়েকসহ (২৮) দুইজনে মিলে জোরপূর্বক মেয়েটিকে ধর্ষণ করে।

এ সময় মেয়েটির চিৎকারে তার বোন জামাই মুন্না তেলী ও এলাকাবাসী পরিত্যক্ত স্কুল গৃহ থেকে মেয়েটিকে উদ্ধার করে কমলগঞ্জ থানায় নিয়ে আসে। পরে কমলগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে মেয়েটিকে মৌলভীবাজার সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।

নির্যাতিতা মেয়েটির বোন জামাই মুন্না র‌্যালীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে কমলগঞ্জ থানার ওসি ইয়ারদৌস হাসানের নেতৃত্বে এএসআই আনিছুর রহমান, এএসআই সবুজসহ একদল পুলিশ বুধবার (৭ জুলাই) বিকাল সাড়ে ৫টায় কুরমা চা বাগানের শ্রমিক পাড়া থেকে ধর্ষণের অভিযোগে সঞ্জয় ও বিকাশ নামে ২ যুবককে আটক করে। এ ঘটনায় বুধবার রাতেই কমলগঞ্জ থানায় একটি মামলা হয়েছে।

কমলগঞ্জ থানার ওসি ইয়ারদৌস হাসান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ধর্ষণের মামলায় আটক দুইজনকে গ্রেফতার করে বৃহস্পতিবার (৮ জুলাই) সকালে মৌলভীবাজার আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ছড়িয়ে দিন