কমলাপুরে টিকিট প্রত্যাশীদের দীর্ঘ লাইন

প্রকাশিত: ৮:০১ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ২১, ২০১৭

অনলাইন ডেস্ক: ঈদুল আজহা উপলক্ষে টিকিট বিক্রির চতুর্থ দিনে কমলাপুর রেল স্টেশনে টিকিট প্রত্যাশীদের সারি গিয়ে ঠেকেছে রাস্তায়। ঈদ ছুটি শুরু হওয়ার আগের দুইদিন বুধবার ও বৃহস্পতিবারের টিকিট চাহিদা বেশি থাকায় রাত থেকেই স্টেশনে যাত্রীরা ভিড় শুরু করেন।সোমবার সকাল ৮টা থেকে কমলাপুর স্টেশনের তেইশটি কাউন্টার থেকে একসঙ্গে টিকিট বিক্রি শুরু হয়।

এদিন দেয়া হচ্ছে ৩০ আগস্ট ঈদযাত্রার অগ্রিম টিকিট। প্রতিটি কাউন্টারের সামনে আঁকাবাঁকা দীর্ঘ লাইন। লাইন টার্মিনাল ভবন ছাড়িয়ে স্টেশনের প্রবেশপথ পর্যন্ত গিয়ে ঠেকেছে।এবার কোরবানির ঈদে তিন দিনের সরকারি ছুটি শুরু হচ্ছে ১ সেপ্টেম্বর থেকে।

তবে ঈদে ট্রেনের আগাম টিকিটের জন্য রোববার থেকেই শুরু হয় হাহাকার। ঘণ্টার পর ঘণ্টা লাইনে দাঁড়িয়ে থাকার পরও অনেকেই টিকিট ছাড়াই বাড়ি ফিরেছেন।

আবার অনেকেই লাইনেই থেকে গেছেন, পরের দিনের টিকিট সংগ্রহের জন্য। দীর্ঘ কষ্টের পরও চাহিদামাফিক টিকিট না পাওয়ায় হতাশার ছাপ ছিল অনেকের চোখে-মুখে।রোববার কমলাপুর রেলস্টেশনে এমন দৃশ্য দেখা যায়। ওইদিন সকাল ৮টা থেকে ২৩টি কাউন্টারে ২৯ আগস্টের টিকিট দেয়া হয়।

এদিকে এসি টিকিট না পাওয়া নিয়ে যাত্রীদের অভিযোগের বিষয়ে তিনি বলেন, এসি টিকিট কম। বিভিন্ন স্টেশনের কোটা থাকায় সবাইকে এসি টিকিট দেয়া সম্ভব হয় না।

সোমবার বিক্রি হচ্ছে ৩০ আগস্টের টিকিট; আর মঙ্গলবার বিক্রি হবে ৩১ আগস্টের টিকিট।

বিআরটিসির ঈদ স্পেশাল ২৯ আগস্ট: এদিকে তথ্য বিবরণীতে বলা হয়েছে, ঈদুল আজহা উপলক্ষে ঘরমুখী মানুষের যাতায়াতের সুবিধার্থে বিআরটিসি আগামী ২৯ আগস্ট ঈদ স্পেশাল সার্ভিস চালু করবে। চলবে ৫ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত।

আগামী ২৩ আগস্ট ঢাকার মতিঝিল, জোয়ারসাহারা, কল্যাণপুর, গাবতলী, মোহাম্মদপুর, মিরপুর দ্বিতল বাস ডিপো এবং গাজীপুর বাস ডিপো, নারায়ণগঞ্জ বাস ডিপো ও গুলিস্তানের ফুলবাড়িয়া কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনাল থেকে টিকিট বিক্রি করা হবে।