খালেদা জিয়ার সুবিধার জন্যই কেরানীগঞ্জে আদালত ঃতথ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত: ১:১১ পূর্বাহ্ণ, মে ২৩, ২০১৯

খালেদা জিয়ার সুবিধার জন্যই কেরানীগঞ্জে আদালত ঃতথ্যমন্ত্রী

কামরুজ্জামান হিমু

তথ্যমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক হাছান মাহমুদ বলেছেন, বিচারকাজ ও বেগম জিয়ার সুবিধার জন্যই কেরানীগঞ্জে আদালত স্থাপন করছে সরকার এবং তা আইন ও বিধি অনুসারেই হচ্ছে।’

বুধবার দুপুরে রাজধানীর কাকরাইলে বাংলাদেশ প্রেস ইনস্টিটিউটে পিআইবি-এটুআই গণমাধ্যম পুরস্কার ২০১৮ প্রদান শেষে সাংবাদিকরা এবিষয়ে বিএনপি’র মন্তব্যের প্রতিক্রিয়া জানতে চাইলে তিনি একথা বলেন।

ড. হাছান মাহমুদ বলেন, ‘আইন ও বিধি অনুসারে যে কোনো স্থানে সরকার আদালত স্থাপন করতে পারে। এর সাথে সংবিধানের বিরোধ নেই। আর বিএনপি নেতারা ক্রমাগতভাবে বলে আসছেন, বেগম খালেদা জিয়া অসুস্থ। যদিও তার আর্থরাইটিস, কোমর ও হাঁটুর ব্যথা নতুন নয়, এব্যথা নিয়েই তিনি দু’বার প্রধানমন্ত্রীত্ব ও বিরোধীদলীয় নেতার কাজ করেছেন, তবুও সরকার তা বিবেচনায এনে বিচারকাজের সুবিধার জন্য কেরানীগঞ্জে আদালত গঠনের যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে, তাতে বিএনপি’র খুশি হবারই কথা।’

বিএনপি নাশকতার দিকে ঝুঁকতে পারে কিনা, এমন প্রশ্নের জবাবে তথ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপি ২০১৩ থেকে ২০১৫ সালে যা করেছে, তা থেকে প্রমাণিত হয়, তারা সুযোগ পেলে আবারো একই ধরনের কাজ করবে।’

এর আগে পুরস্কার প্রদান সভায় বক্তৃতায় ড. হাছান মাহমুদ মানুষের মানবিক নানা দিক নিয়ে অনুসন্ধানী প্রতিবেদন তৈরির আহ্বান জানান সাংবাদিকদের।

পিআইবি পরিচালনা বোর্ডের চেয়ারম্যান ও বিশিষ্ট সাংবাদিক আবেদ খানের সভাপতিত্বে সম্মানিত অতিথি হিসেবে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার, বিশেষ অতিথি হিসেবে তথ্যসচিব আবদুল মালেক, এটুআই এর পলিসি অ্যাডভাইজর আনীর চৌধুরী, পিআইবি’র মহাপরিচালক জাফর ওয়াজেদ এবং ভোরের কাগজের সম্পাদক জুরি বোর্ড প্রতিনিধি শ্যামল দত্ত অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার তার বক্তৃতায় ডিজিটাল নিরাপত্তার বিষয়টিকে মানুষের ব্যক্তিগত ও প্রাতিষ্ঠানিক সুরক্ষার জন্য আবশ্যক হিসেবে বর্ণনা করে এবিষয়ে আইনের যৌক্তিকতা তুলে ধরেন।

পিআইবি-এটুআই গণমাধ্যম পুরস্কার-২০১৮ বিজয়ীরা হলেন, বৈশাখী টিভি’র বুদ্ধদেব কুন্ডু, রাইজিং বিডি’র রফিকুল ইসলাম মন্টু, দৈনিক ঢাকা ট্রিবিউন’র ইব্রাহিম হোসাইন, বাংলাদেশ বেতারের মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান, দৈনিক গ্রামের কাগজের উজ্জ্বল বিশ্বাস, অনলাইন ঢাকা ট্রিবিউন’র সৈয়দ জাকির হোসেন এবং দৈনিক শেয়ার বিজ’র মোহাম্মদওয়ালী উল্লাহ।

পিআইবি-এটুআই গণমাধ্যম পুরস্কার-২০১৮ জুরি বোর্ডের সদস্যরা ছিলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য আ আ ম স আরেফিন সিদ্দিক, ঢাকা ট্রিবিউনের সম্পাদক জাফর সোবহান, দৈনিক ভোরের কাগজের সম্পাদক শ্যামল দত্ত, বিএনএনআরসি’র প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা এইচ এম বজলুর রহমান, গাজী টেলিভিশন ও সারাবাংলা ডট নেটের এডিটর-ইন চিফ ইশতিয়াক রেজা, রয়টার্সের রফিকুর রহমান, এটুআই প্রোগ্রামের কমিউনিকেশন এক্সপার্ট তানজিনা শারমিন এবং পিআইবি’র সাবেক মহাপরিচালক মো. শাহ আলমগীর।