গণমাধ্যমকে সমাজের অসংগতিগুলো তুলে ধরতে হবে

প্রকাশিত: ১২:৩৮ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ৩, ২০১৮

গণমাধ্যমকে সমাজের অসংগতিগুলো তুলে ধরতে হবে

 

সমাজকল্যাণমন্ত্রী ও বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন এমপি বলেন,
সামাজিক উন্নয়ন বা সামাজিক বঞ্চনা এর কোনটিই গণমাধ্যমের দৃষ্টির বাইরের কিছু নয়।এক্ষেত্রে গণমাধ্যমকে কেবল নেতিবাচক ও মুখরোচক বিষয়কে তুলে ধরলেই চলবে না,গণমাধ্যমকে সমাজের অসংগতিগুলো তুলে ধরে তার সমাধানে প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নিতে হবে।”
মঙ্গলবার দুপুরে, রাজধানীর সার্কিট হাউজে পিআইবি’তে “পিআইবি- প্রবীণবন্ধু সম্মাননা ২০১৮ ও প্রবীণের অধিকার,টেকসই উন্নয়ন ও গণমাধ্যমের ভূমিকা” শীর্ষক কর্মশালায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে কথাগুলো বলেন তিনি ।
বর্তমানে বাংলাদেশে প্রায় ৪০ লক্ষ প্রবীণকে সরকারি সম্মানী ভাতা দেয়া হচ্ছে উল্লেখ করে মেনন আরো বলেন -“আমাদের বর্তমান সরকার দেশের সকল খাতের মত প্রবীণ সহায়ক খাতেও ব্যপক উন্নয়ন ঘটিয়েছে।যেখানে ২০০৮-০৯ অর্থ বছরে মোট ২০ লক্ষ প্রবীণ ব্যক্তিকে প্রায় ৬শ কোটি টাকা দেয়া হয়েছিল,সেখানে বর্তমানে ২০১৮-১৯ অর্থবছরে প্রায় ৪০ লক্ষ প্রবীণ ব্যক্তির জন্য ২১শ কোটি টাকা বরাদ্দ রাখা হয়েছে।এভাবে গত ১০ বছরে বর্তমান সরকার প্রায় ২ কোটি ৬৭ লক্ষ ৭০ হাজার প্রবীণ ব্যক্তিকে ১১ হাজার ৭৯৯ কোটি টাকা প্রদান করেছে।”
প্রবীণ জনগোষ্ঠীর অধিকারসংক্রান্ত বিদ্যমান নানা আইন প্রসঙে সমাজকল্যাণমন্ত্রী আরো বলেন-“শেষ বয়সে প্রবীণ ব্যক্তিদের অসহায়ত্বের কথা বিবেচনা করে দেশে এখন পিতা মাতা ভরণ পোষণ আইন রয়েছে।তবে এই আইনের যথার্থ বাস্তবায়ন করার প্রয়োজন আমাদের রয়েছে। প্রবীণ নীতিমালা করা হয়েছে যাতে প্রবীন ব্যক্তিরা বাসে,ট্রেনে, হাসপাতালে সহ সকল যানবাহনে বিশেষ সুবিধা লাভ করে।প্রবীণদের জন্য প্রবীণ উন্নয়ন ফাউন্ডেশন আইনটি চালু করার ব্যাপারে আমরা নতুনভাবে উদ্যোগ নিতে যাচ্ছি। এছাড়াও দেশের বীমা কোম্পানীগুলো যেন তাদের অন্যান্য বীমার মত প্রবীণদের নামে বয়স্ক বীমা স্কীম চালু করে সে ব্যাপারে বীমা কোম্পানীগুলোকে কাজ করতে হবে।”

পি.আই.বি’র মহাপরিচালক মো. শাহ আলমগীর এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে আরো বক্তব্য রাখেন পল্লী কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ড. কাজী খলিকুজ্জামান আহমদ,জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান কাজী রিয়াজুল হক, একুশে পদকপ্রাপ্ত প্রবীণ সাংবাদিক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা কামাল লোহানী,প্রবীন হিতৈষী সংঘ ও জরা বিজ্ঞান প্রতিষ্ঠানের মহাসচিব অধ্যাপক ড. এ এস এম আতিকুর রহমান,মামস ইন্সটিটিউট এর সিইও অধ্যাপক সায়েবা আক্তার,হেল্প এইজ ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের কান্ট্রি ডিরেক্টর রাবেয়া সুলতানা,বয়স্ক পুনর্বাসন কেন্দ্রের চেয়ারম্যানের সহধর্মিণী মাসুদা খাতুন লিমা।মূল বক্তব্য উপস্থাপন করেন প্রবীণ বন্ধু ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান মহসীন কবির।স্বাগত বক্তব্য রাখেন পিআইবি অধ্যায়ন ও প্রশিক্ষণ বিভাগের পরিচালক আনোয়ারা বেগম।

অনুষ্ঠানে প্রবীণ ব্যক্তিদের জন্য বিশেষ অবদানের স্বীকৃতিসরুপ “পিআইবি-প্রবীণবন্ধু সম্মাননা ২০১৮” প্রদান হয় যথাক্রমে সমাজকল্যাণমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন এমপি, পল্লী কর্ম সহায়ক ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ড. কাজী খলিকুজ্জামান আহমদ,জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান কাজী রিয়াজুল হক, একুশে পদকপ্রাপ্ত প্রবীণ সাংবাদিক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা কামাল লোহানী,প্রবীন হিতৈষী সংঘ ও জরা বিজ্ঞান প্রতিষ্ঠানের মহাসচিব অধ্যাপক ড. এ এস এম আতিকুর রহমান,মামস ইন্সটিটিউট এর সিইও অধ্যাপক সায়েবা আক্তার,হেল্প এইজ ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশের কান্ট্রি ডিরেক্টর রাবেয়া সুলতানা এবং বয়স্ক পুনর্বাসন কেন্দ্রের চেয়ারম্যানের পক্ষে তার সহধর্মিণী মাসুদা খাতুন লিমাকে।