ডেল্টার কারণে চীনে ফের করোনার প্রকোপ

প্রকাশিত: ৫:২৭ অপরাহ্ণ, জুলাই ৩০, ২০২১

ডেল্টার কারণে চীনে ফের করোনার প্রকোপ

চীনের প্রথম শনাক্ত হওয়া কোভিড সারা বিশ্বকে বিদ্ধস্ত করছে। করোনার উৎপত্তিস্থল চীনি করোনাকে ভালোভাবে মোকাবিলা করে স্বস্তিতে দিন কাটালেও ফের চিন্তার ভাজ পড়েছে দেশটির স্বাস্থ্য বিভাগে।

 

ডেল্টা করোনা দেশটির নানজিং শহরে হানা দিয়েছে। প্রাদুর্ভাব দেশটির পাঁচ প্রদেশ ও রাজধানী শহর বেইজিংয়ে ছড়িয়ে পড়েছে। চীনের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম নতুন করে শুরু হওয়া প্রকোপকে উহানের পর সবচেয়ে বিস্তৃত সংক্রমণ বলে অভিহিত করেছে।

 

বিবিসি জানাচ্ছে, গত ২০ জুলাই নগরীর ব্যস্ততম বিমানবন্দরে এ প্রাদুর্ভাব প্রথমবার শনাক্ত হওয়ার পরে প্রায় ২০০ মানুষ আক্রান্ত হয়েছেন। স্থানীয় গণমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুযায়ী নানজিংয়ের সব ফ্লাইট ১১ আগস্ট পর্যন্ত বাতিল করা হয়েছে।

 

তাদের বিরুদ্ধে ব্যর্থতার অভিযোগ ওঠার পর সেখানকার সরকারি কর্মকর্তরা নগরজুড়ে গণহারে করোনার পরীক্ষা শুরু করেছে। দেশটির রাষ্ট্রায়ত্ত সংবাদ সংস্থা শিনহুয়া বলছে, ৯৩ লাখ বাসিন্দার ওই শহরের প্রত্যেক বাসিন্দা ও সেখানে যারা যাবেন সবার পরীক্ষা হবে।

 

দেশটির সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমগুলোতে হওয়া পোস্টে মানুষজনকে এর জন্য দীর্ঘ লাইনে দাঁড়িয়ে থাকতে দেখা যাচ্ছে। কর্তৃপক্ষ বারবার মানুষকে মাস্ক পরা, এক মিটার দূরত্ব বজায় রাখা এবং অপেক্ষা করার সময় কথা না বলার আহ্বান জানাচ্ছে।

 

কর্মকর্তারা বলছেন, নতুন করে শুরু হওয়া এই প্রকোপের নেপথ্যে রয়েছে অতিসংক্রামত করোনার ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট। তারা বলছেন যে, বিমানবন্দরটি খুব ব্যস্ততম হওয়ার কারণে অতিসংক্রামক এই ধরনটির বিস্তার আরও বেশি করে ছড়িয়ে পড়েছে।

 

নানজিংয়ের স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডিং জিয়ে সাংবাদিকদের বলেন, এ প্রকোপ প্রথম শুরু হয় বিমানবন্দরের একজন পরিচ্ছন্নতাকর্মীর মাধ্যমে। যিনি গত ১০ জুলাই রাশিয়া থেকে আসা একটি ফ্লাইটের দায়িত্বে ছিলেন। শিনহুয়ার দাবি, ওই পরিচ্ছন্নতাকর্মী স্বাস্থ্যবিধি মানেননি।

 

চীনের ক্ষমতাসীন কমিউনিস্ট পার্টির শীর্ষস্থানীয় একটি ডিসিপ্লিনারি কর্তৃপক্ষ ‘তত্ত্বাবধানের অভাব, অপেশাদার আর অব্যবস্থাপনার মতো সমস্যা আছে’ জানিয়ে বিমানবন্দর ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষকে এই প্রকোপ ছড়ানোর জন্য অভিযুক্ত করে তিরস্কার করেছে।

 

করোনা নমুনা পরীক্ষায় দেখা যাচ্ছে যে, প্রকোপ শুধু নানজিং নয় দেশটির রাজধানী শহর বেইজিং ও চেংদুসহ আরও অন্তত ১৩টি শহরে ছড়িয়েছে। তবে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই প্রাদুর্ভাব এখনো প্রাথমিক স্তরে রয়েছে এবং এর প্রকোপ নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব।

 

নানজিংয়ের স্থানীয় কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, আক্রান্তদের মধ্যে সাত জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক। এছাড়া নতুন করে করোনা এমন বিস্তার শুরুর পর সামাজিক মাধ্যমে চীনা কোম্পানির তৈরি টিকায় করোনার ডেল্টা ধরনের সংক্রমণে ঠেকানো নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে।

 

তবে যারা আক্রান্ত হয়েছেন তারা কোভিড টিকা নিয়েছেন কিনা তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি। এদিকে দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার অনেক দেশ, যারা চীনা টিকার ওপর নির্ভরশীল, সেসব দেশ ঘোষণা দিয়েছে যে তারা অন্যান্য কোম্পানির তৈরি টিকা দেশের মানুষকে দেবে।

 

২০১৯ সালে চীনের উহান শহরে প্রথম করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব ঘটে। তারপর বৈশ্বিক মহামারির রূপ নেয়। করোনাভাইরাস সংক্রমণ ঠেকাতে প্রথম থেকেই কঠোর অবস্থান নিয়ে চীন এর রাশ টেনে ধরতে অনেকটা সফলও হলেও আবার এর প্রকোপ শুরু হয়েছে।

এএস

ছড়িয়ে দিন

Calendar

September 2021
S M T W T F S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
2627282930