ঢাকা ১২ই জুলাই ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ২৮শে আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৬ই মহর্‌রম ১৪৪৬ হিজরি


তালেবানদের বিরুদ্ধে বিমান হামলা চালাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

redtimes.com,bd
প্রকাশিত জুলাই ২৩, ২০২১, ০৪:৪২ অপরাহ্ণ
তালেবানদের বিরুদ্ধে বিমান হামলা চালাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

তালেবান বিদ্রোহীদের দমনে আফগান সেনাবাহিনীর সঙ্গে যুগপৎভাবে কাজ করছে মার্কিন সেনাবাহিনী। যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক বাহিনীর সদর দফতর পেন্টাগনের প্রেস সেক্রেটারি জন কিরবি বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানিয়েছেন।

তালেবান ঘাঁটিসমূহ লক্ষ্য করে যুক্তরাষ্ট্রের সেনা সদস্যরা বিমান হামলা চালাচ্ছে উল্লেখ করে জন কিরবি বলেন, ‘আফগান সেনা বাহিনী এএনডিএসএফকে (আফগান ন্যাশনাল ডিফেন্স অ্যান্ড সিকিউরিটি ফোর্স) সহযোগিতা করতে আফগানিস্তানে তালেবান ঘাঁটিসমূহ লক্ষ্য করে বিমান হামলা পরিচালনা করছে মার্কিন সেনা সদস্যরা।’

‘তবে কোথায় কোথায় এই হামলা করা হয়েছে কীভাবে এএনডিএসএফের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের সেনাসদস্যরা সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করছেন- কৌশলগত কারণে এ বিষয়ে আমি বিস্তারিত কিছু বলব না।’

আফগানিস্তানের কয়েকটি সংবাদমাধ্যম জানিয়েছে, সম্প্রতি মার্কিন বাহিনীর বিমান হামলায় বেশ কয়েকজন তালেবান সদস্য মারা গেছেন।

গত জুলাই মাসের শেষ দিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন আগামী ৩১ আগস্টের মধ্যে আফগানিস্তান থেকে সব যুক্তরাষ্ট্র ও ন্যাটো সেনা সদস্যদের প্রত্যাহার করে নেওয়ার ঘোষণা দেন।

বাইডেনের এই ঘোষণার পর থেকে একে একে মার্কিন সেনাসদস্যরা আফগানিস্তান ত্যাগ করতে থাকেন। ইতোমধ্যে প্রায় ৯৫ শতাংশ মার্কিন ও ন্যাটো সেনা সদস্য দেশটি থেকে বিদায় নিয়েছেন।

গত ৬ জুলাই আফগানিস্তানের বাগরাম বিমানবন্দর ত্যাগ করেন মার্কিন সেনারা। ২০০১ সালে আফগানিস্তানে মার্কিন অভিযান শুরুর পর থেকেই এই বিমানবন্দরটিকে সদর দফতর হিসেবে ব্যবহার করে আসছিলেন মার্কিন ও ন্যাটো সেনা সদস্যরা।

এদিকে, যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের সেনা প্রত্যাহারের ঘোষণার পর থেকেই দেশজুড়ে দৌরাত্ম্য শুরু করে কট্টর ইসলামপন্থি গোষ্ঠী তালেবান। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যমে প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, ইতোমধ্যে আফগানিস্তানের বিস্তির্ণ এলাকায় নিজেদের দখল কায়েম করতে সক্ষম হয়েছে তালেবান সদস্যরা।

বুধবার যুক্তরাষ্ট্রের সেনাবাহিনীর জয়েন্ট চিফ অফ স্টাফ মার্ক মিলি বুধবার বার্তাসংস্থা এএফপিকে জানিয়েছিলেন, আফগানিস্তানের ৩৪ টি প্রদেশের মধ্যে ১৭ টিতে সশস্ত্র তালেবান বিদ্রোহীদের চাপ বাড়ছে; এবং দ্রুত কোনো ব্যবস্থা না নেওয়া হলে পুরো আফগানিস্তান তারা দখল করে নেবে।

এএফপিকে মার্ক মিলি বলেন, ‘যে পর্ব আমরা শেষ করে এসেছি, সম্ভবত তার একটি নতুন অধ্যায় ফের আমাদের শুরু করতে হতে পারে।’

সংবাদটি শেয়ার করুন

July 2024
S M T W T F S
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
28293031