দেশকে বাইরের দেশের সামনে তুলে ধরেছি ঃনারগিস সোমা

প্রকাশিত: ১২:৩৩ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ৩, ২০১৯

দেশকে বাইরের দেশের সামনে তুলে ধরেছি ঃনারগিস  সোমা

শ্রীলঙ্কায় সম্প্রতি বাংলাদেশের চিত্রশিল্প তুলে ধরেছেন শিল্পী নারগিস সোমা । তার নেতৃত্বে সেখানে হয়ে গেল রাজশাহীর ষড়ং আর্ট গ্রুপের আয়োজনে তৃতীয়বারের মতো আন্তর্জাতিক পর্যায়ের চিত্র প্রদর্শনী।রেডটাইমসের জন্য তার সাক্ষাতকার নিয়েছেন কামরুজ্জামান হিমু ।

সম্প্রতি আপনি শ্রীলঙ্কাতে আন্তর্জাতিক পর্যায়ের চিত্র প্রদর্শনী করলেন।কেমন লাগলো ?

নারগিস সোমাঃশ্রীলঙ্কার মানুষ সহযোগিতা করছে অনেক, যার কারনে আমি ও আমরা সফল হয়েছি । আমাদের দেশ শ্রীলঙ্কা,নেপাল,ভারত সব দেশের ভাষার শব্দ গুলো অনেক মিল, শ্রীলঙ্কার খাবার গুলো সাউথ ইন্ডিয়ার সাথে অনেক মিল । আর আবহাওয়া সারা বছর প্রায় একই রকম । দিনের বেলাতে কড়া রোদ আর বিকেলে হালকা ঠান্ডা মাঝে মাঝে কোন কোন দিন বৃষ্টি ।

এটা নিয়ে তো একটি ভ্রমন কাহিনি লিখতে পারেন ।

নারগিস সোমাঃভালো খারাপ মিলিয়ে নাকি মানুষ, দেশে বিদেশে সব জায়গাতেই তাই । এবার আমাদের ষড়ং আর্টগুপের প্রদর্শনী ছিলো শ্রীলঙ্কাতে ।আমাকে একজন বললো শ্রীলঙ্কাতে প্রদর্শনী করে এসে আমার অনুভূতি গুলো লিখতে, তার কথা শুনে অনেকক্ষণ ভাবলাম ,কি লিখবো।লিখতে গেলে তো আমার দেশের মানুষের কাছে বিদেশে নিজের দেশকে ছোট করার কথাই লিখতে হবে প্রথমে । অনেক ভাবলাম একবার মনে হলো লিখবো আবার মনে হলো লিখবো না । শেষে সিদ্ধান্ত নিলাম লেখাটাই উচিত হবে ।

মনে হচ্ছে আপনি কোন বিরূপ অভিজ্ঞতা পেয়েছেন?

নারগিস সোমাঃশ্রীলঙ্কাতে বাংলাদেশের এম্ব্যাসেডর আমার অনুস্ঠানের চিফ গেস্ট ছিলেন।অনুস্ঠান শুরু হয় ৪.৫০ মিনিটে । সেই সময়েই তিনি আসেন, গ্যালারিরর বাইরে থেকে ভেতরের সবাইকে দেখা যাচ্ছে। তিনি গ্যালারিতে ঢুকতে ঢুকতেই আমাকে বললেন এতো মানুষ কেনো? আমি বললাম ৫ দেশের মোট ৪০ জন শিল্পী আছে এখানে বাকি সবাই গেস্ট। তিনি আমার সাথে সামনের সারিতে রাখা চেয়ারে বসলেন। বললেন, এবার কি করতে হবে? আমি বললাম স্টেজে বসতে হবে । যারা গেস্ট আছেন তারাসহ ।তিনি সাথে সাথে আমাকে বললেন, আমি বসবো না আমার স্টেজে বসাটা ভালো লাগে না। আমি বললাম , আপনি ওখানে না বসলে কিভাবে সবাইকে পুরস্কার দেবেন ? তিনি আমার অনুরোধেও বসলেন না স্টেজে । আমার অনুস্ঠানের সব কিছু ওলট পালট হয়ে গেল। সাজানো স্ক্রিপ্টের বাইরে সব করতে হলো । সামনে দাড়িয়ে প্রদীপ জালালেন, গ্যালারী ছিলো উপরের ফ্লোরে,সবাই একসাথে সিড়ি দিয়ে ওপরে গ্যালারির দরজার সামনে গেলাম ।দরজার সামনে দাড়িয়ে তিনি বলেন এত সাজানো কেন, বিয়ে নাকি ? তার কাছে গ্যালারি হয়্তো নিজের বাসর ঘর মনে হয়েছে। কিন্তু বাইরে থেকে যে সব শিল্পী ছিলেন তারা কানাঘুষা শুরু করলেন । বাংলাদেশের এম্ব্যাসেডরের এ কেমন ব্যাবহার । নিজের দেশকে ছোট করছে প্রতিনিয়ত । তিনি আমাকে বললেন শ্রীলঙ্কাতে নাকি এমন করে ওপেনিং হয়না। তাই তিনি নারাজ ।

আপনার কি মনে হয়েছে ?

নারগিস সোমাঃআমি তো আমার দেশকে বাইরের দেশের সামনে তুলে ধরেছি । আমি আমার গ্রুপের প্রদর্শনী বলে যত জায়গাতে গিয়েছি দেশের ভেতরে দেশের বাইরে সব জায়গাতে এমনি দেখেছি। আমি শুনেছিলাম তিনি শিল্পমনা আর বাংলাদেশ থেকে যাচ্ছি দেশের মানুষের সহযোগিতা পাবো । আর্থিক না হলেও দেশের বাইরে মানসিক সহযোগিতাটা অনেক বড়।আমি জানি না তিনি কেন এমন আচরন করলেন । তবে এটা বলবো, দেশের সম্মানের সামনে অন্য কোন কিছু বড় হয় বলে আমার জানা ছিল না।দেশকে যারা ভালোবাসে তারা কখনো অন্য দেশের মানুষের সামনে নিজের দেশকে ছোট করার চেস্টা করেন না । তিনি কফি খেয়ে বিদায় নিলেন । আমরা সবাই মিলে আবার অনুষ্ঠান শুরু করে সব অনুষ্ঠান শেষ করলাম। অনুষ্ঠান শেষ করে বার বার একটা কথাই মনে হচ্ছিল, এত কষ্ট করে যাদের রক্তের বিনিময়ে দেশ স্বাধীন হলো তাদের সম্মানকে এভাবে নষ্ট করার অধিকার এদেরকে কে দিয়েছে?
আমি বাঙ্গালি, আমার ডাকে বিভিন্ন দেশ থেকে শিল্পীরা এসেছে । আমি আমার দেশের মানুষের সম্মান রাখতে পারলাম না এ্যামবেসেডরের এসব আচরনে । আমরা শিল্পীরা নিজেদের শিল্পকর্মের মাধ্যমে দেশকে তুলে ধরি বাইরের দেশের মানুষের সামনে, দেশের বাইরে গেলে আগেই ভাবি দেশের কথা। অথচ তারা অবলীলায় দেশের সম্মান নষ্ট করেন । নিশ্চয় আমাদের দেশের সব এম্ব্যাসেডর এক রকম নয় ।

Calendar

March 2021
S M T W T F S
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
28293031  

http://jugapath.com