প্রশ্ন ফাঁসের দায়ে জাবি শিক্ষার্থী বহিষ্কার, বাধ্যতামূলক অবসরে কর্মচারী

প্রকাশিত: ১:০২ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২, ২০২৪

প্রশ্ন ফাঁসের দায়ে জাবি শিক্ষার্থী বহিষ্কার, বাধ্যতামূলক অবসরে কর্মচারী
সিনিয়র রিপোর্টারঃ
জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে (জাবি) রসায়ন বিভাগের ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) পর্যায়ের চূড়ান্ত পরীক্ষায় প্রশ্ন ফাঁসের দায়ে জাহিদ মোস্তফা নামে এক শিক্ষার্থীকে আজীবন বহিষ্কার করা হয়েছে।
এছাড়া বিভাগের দুই কর্মচারীকে ভিন্ন ভিন্ন শাস্তি ও একজনকে সতর্ক করা হয়েছে।
সোমবার (১ এপ্রিল) বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক মো. নূরুল আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সিন্ডিকেটের এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ও সিন্ডিকেটের সচিব আবু হাসান বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।
সভাসূত্রে জানা গেছে, অভিযুক্ত শিক্ষার্থী জাহিদ মোস্তফাকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আজীবন বহিষ্কার করা হয়েছে। এছাড়া কর্মচারীদের মধ্যে, শহিদুল ইসলামকে বাধ্যতামূলক অবসর, মোহাম্মদ আলী আশ্রাফকে সর্টার গ্রেড-৩ থেকে পিয়ন পদে পদাবনতি ও আরেকজনকে লিখিতভাবে সতর্ক করা হয়েছে।
গত বছরের ১১ জুন রসায়ন ৪৭ ব্যাচের স্নাতক চতুর্থ বর্ষের ফাইনাল পরীক্ষার ‘টপিকস ইন বায়োকেমেস্ট্রি’ নামে ৪৩৩ নম্বর কোর্সের পরীক্ষা চলাকালীন উত্তরপত্র নিয়ে প্রবেশ করার অভিযোগে জাহিদ মোস্তফার খাতা বাতিল করা হয়।
পরে প্রশ্ন ফাঁসের বিষয়টি আলোচনায় আসলে ১৩ জুন বিভাগ কর্তৃক তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়।
গত বছরের ৩ সেপ্টেম্বর এক জরুরি সিন্ডিকেট সভায় বিভাগীয় একাডেমিক কমিটির গঠিত তদন্ত কমিটির প্রতিবেদন বিবেচনা করে অভিযুক্তদের সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।
এছাড়া এ ঘটনায় দায়-দায়িত্ব পর্যালোচনাপূর্বক বিস্তারিত প্রতিবেদন প্রদানের জন্য চার সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছিল। এছাড়া পূর্বের পরীক্ষা কমিটি বাতিল করে নতুন পরীক্ষা কমিটি গঠন করে স্থগিত বাকি পরীক্ষা নেওয়া হয়, পাশাপাশি অভিযুক্ত শিক্ষার্থী জাহিদ মোস্তফার সকল পরীক্ষা বাতিল করা হয়।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

লাইভ রেডিও

Calendar

April 2024
S M T W T F S
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930