বিএনপির সঙ্গে আলোচনার প্রশ্নই আসে না: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত: ১০:৪১ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২, ২০১৮

বিএনপির সঙ্গে আলোচনার প্রশ্নই আসে না: প্রধানমন্ত্রী

শরীফুল ইসলাম শরীফঃ

‘বিএনপির সঙ্গে আলোচনার প্রশ্নই আসে না’ বলেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সাংবাদিকদের একটি প্রশ্নের জবাবে শেখ হাসিনা আরো বলেন, ‘বেগম খালেদা জিয়ার ছেলের (আরাফাত রহমান কোকো) মৃত্যুর পর আমি তার বাসায় গেলাম। মুখের ওপর দরজা বন্ধ করে দিলো। এই অপমান, এটা তো মেনে নেওয়া যায় না। ওইদিন থেকেই সিদ্ধান্ত নিয়েছি, তাদের (বিএনপি) সঙ্গে আর কোনো আলোচনা হতে পারে না। এখন যে যা-ই বলুন, তাদের সঙ্গে আমি অন্তত বসব না।’

নির্বাচনে ইভিএম ব্যবহারের বিষয়ে প্রশ্ন করা হলে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘ইভিএম নিয়ে আসার জন্য আমি সবসময় পক্ষেই ছিলাম, এখনো আছি। তবে এটাও ঠিক, এটা তাড়াহুড়ো করে চাপিয়ে দেওয়া ঠিক হবে না। কারণ একটা প্র্যাকটিসের ব্যাপার আছে।’

ইভিএম চালু করার বিষয়ে বিএনপির জোর বিরোধিতার বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী অভিযোগ করে বলেন,  ‘ইভিএম চালু হলে বিএনপি ভোট কারচুপি করতে পারবে না বলেই তারা আপত্তি জানাচ্ছে।’

খালেদা জিয়া ছাড়া নির্বাচনে যাবে না বলে বিএনপির সিদ্ধান্তের বিষয়ে এক প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘কোর্টের মাধ্যমে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। আর দ্রুত মুক্তি চাইলে রাষ্ট্রপতির কাছে ক্ষমা চাইতে হবে। বিএনপি নির্বাচনে আসবে কি আসবে না, সেটা তাদের ব্যাপার। এটি তাদের দলীয় সিদ্ধান্ত। আমরা জোর করে কাউকে নির্বাচনে আনতে চাই না।’

জাতীয় নির্বাচনকে ঘিরে শঙ্কা রয়েছে আদৌ নির্বাচন হবে কি না। এ বিষয়ে করা প্রশ্নের জবাবে শেখ হাসিনা বলেন, ‘নির্বাচন হবেই। কেউ ঠেকাতে পারবে না, কারো শক্তি নেই নির্বাচন ঠেকানোর। যারা ঠেকাতে চেয়েছিল, তাদের আগেরবার যেমন জনগণ মোকাবিলা করেছিল, এবারও মোকাবিলা করবে।’

নির্বাচনকালীন সরকারের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘নির্বাচনের ব্যাপারে সংবিধানে বিধান সংরক্ষিত আছে। আমরা বহু অভিজ্ঞতা নিয়েছি। মার্শাল ল’ দেখলাম। তত্ত্বাবধায়ক সরকার দেখলাম। কারে বসাব, বসলে তো চেয়ার ছাড়ে না। আমরা আর অনির্বাচিত সরকারের হস্তেক্ষেপ দেখতে চাই না।’