বিএনপি চায় ঘরে ঘরে দাঙ্গা-হাঙ্গামা লাগাতে : পরিকল্পনামন্ত্রী

প্রকাশিত: ৭:৫৮ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২, ২০২৩

বিএনপি চায় ঘরে ঘরে দাঙ্গা-হাঙ্গামা লাগাতে  : পরিকল্পনামন্ত্রী
সদরুল আইন/ কপিল দেবঃ
পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান বলেছেন, নির্বাচনকে সামনে রেখে বিএনপি চায় ঘরে ঘরে দাঙ্গা-হাঙ্গামা লাগাতে। তারা চায় ভোট হবে না, তারা জ্বালাও-পোড়াও করে দেশকে অস্থিতিশীল করতে চায়, তারা চায় কেউ এসে তাদের ক্ষমতা দিয়ে দেবে আর তারা দেশকে লুট করবে।
এ সুযোগ তারা পাবে না। দাঙ্গা-হাঙ্গামা করে ক্ষমতায় আসা যাবে না। আমরা ঝগড়া বিবাদে নেই। আমরা চাই সবাই নির্বাচনে আসুক।
মঙ্গলবার দুপুরে সুনামগঞ্জের শান্তিগঞ্জ উপজেলার ডুংরিয়া হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজ অডিটোরিয়ামে এক অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।
‘বঙ্গবন্ধুর গণমুখী সমবায় ভাবনার আলোকে বঙ্গবন্ধু মডেল গ্রাম প্রতিষ্ঠা’ শীর্ষক পাইলট প্রকল্পের আওতায় বঙ্গবন্ধু মডেল গ্রাম সমবায় সমিতি লিমিটেড ডুংরিয়ার উপকারভোগীদের মাঝে আবর্তক তহবিল হতে ৮৭ জন উপকারভোগীদের মাঝে ৭৮ লাখ ৫০ হাজার টাকার ঋণের চেক বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান।
মন্ত্রী বলেন, হাওড়াঞ্চলের মানুষের জন্য প্রধানমন্ত্রীর নজর বেশি। তিনি চান হাওরের মানুষ এগিয়ে যাক। সুনামগঞ্জ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের কাজ এই শীতেই শুরু হবে। মেডিকেলের কাজও দ্রুত শেষ হচ্ছে।
বিটাকের কাজ চলমান, টেক্সটাইল ইন্সটিটিউট হয়েছে। এসব কিছু সম্ভব হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে। কাজেই তাকে মনে রাখতে হবে।
অনুষ্ঠানে বঙ্গবন্ধু মডেল গ্রাম ডুংরিয়ার সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান প্রভাষক নূর হোসেনের সভাপতিত্বে ও উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা মাসুদ আহমদের সঞ্চালনায় আরও বক্তব্য রাখেন- শান্তিগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আনোয়ার উজ জামান, সিলেট বিভাগীয় যুগ্ম নিবন্ধন জিয়াউল হক, সদর উপজেলা সমবায় কর্মকর্তা বিজিত রঞ্জন কর, শান্তিগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সিতাংশু শেখর ধর সিতু, উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা আলমগীর হোসেন, থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খালেদ চৌধুরী ও ডুংরিয়া হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মদন মোহন রায়।
এরপর বঙ্গবন্ধু মডেল গ্রামের সদস্যদের উদ্বুদ্ধকরণে প্রদর্শনী মৎস্য খামারে পোনামাছ অবমুক্ত করেন পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

লাইভ রেডিও

Calendar

April 2024
S M T W T F S
 123456
78910111213
14151617181920
21222324252627
282930