বিশ্বের যেসব দেশে উচ্চশিক্ষার খরচ অতি ব্যায়বহুল

প্রকাশিত: ৫:৪৬ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১, ২০১৬

বিশ্বের যেসব দেশে উচ্চশিক্ষার খরচ অতি ব্যায়বহুল

এসবিএন ডেস্ক: আমাদের সবারেই জানা বিদেশ উচ্চশিক্ষার জন্য কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্ষেত্রে ব্যয়বহুল খরচ করতে হয় ব্রিটেন ও আমেরিকায়।

কিন্তু এর বাইরে এমন কয়েকটি দেশের কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয় আছে যেমন নামি, তদুপরি দামিও বটে।

এইরকম শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পড়তে গেলে প্রচুর খরচ করতে হয়। বিজনেস ইনসাইডারের প্রতিবেদনে পাওয়া যায় এমন কয়েকটি দেশের কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ের কথা। যেখানে পড়ার খরচ আকাশচুম্বি। জেনে নিন নিম্নের কয়েকটি দেশের কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ের উচ্চশিক্ষার তথ্য:-

১. আমেরিকা:
মোট টিউশন ফি ৯১ হাজার ৮৩২ ডলার। এ দেশের বেশ কয়েকটি বিশ্ববিদ্যালয় বিশ্বের সেরাদের তালিকায় রয়েছে। এখানে পড়ার খরচও সবচেয়ে বেশি।

২. ব্রিটেন:
মোট টিউশন ফি ৪০ হাজার ২৯০ ডলার। এখানে উচ্চশিক্ষা অর্জনে এতো বেশি খরচ যে, একটি পরিবারের আয়ের প্রায় অর্ধেক চলে যায় এ খাতে।

৩. এস্তোনিয়া:
মোট টিউশন ফি ৩৮ হাজার ৪০০ ডলার। ১৯৯০-এর দশক থেকে সেখানে বিজ্ঞান, গণিত, প্রযুক্তি ও প্রকৌশল বিষয় শিক্ষার্থীদের সংখ্যা আশঙ্কজনক হারে কমে যায়। ২০১১ সালে সরকার এসব বিষয়ে শিক্ষার্থীদের সংখ্যা বৃদ্ধিতে বিশেষ ব্যবস্থা নেয়।

৪. সিঙ্গাপুর:
মোট টিউশন ফি ৩৫ হাজার ৪০০ ডলার। এই দ্বীপরাষ্ট্রে চিকিৎসা বিজ্ঞান এবং বিজ্ঞান বিষয়ে পড়তে অনেক টাকা লাগে।

৫. হাঙ্গেরি:
মোট টিউশন ফি ৩৪ হাজার ২০০ ডলার। প্রতিবছর পরিবারগুলো দেশের গড় আয়ের পুরোটাই দেয় লেখাপড়ার পেছনে। যাদের সঞ্চয় নেই, তাদের ঋণ ছাড়া লেখাপড়া করা কঠিন বিষয়।

৬. রোমানিয়া:
মোট টিউশন ফি ২৫ হাজার ২০০ ডলার। চিকিৎসাবিজ্ঞানে লেখাপড়ার খরচ এখানে অনেক। এ ছাড়া উচ্চশিক্ষায় অন্যান্য বিষয়ে লেখাপড়া করতেও অনেক খরচ।

৭. জাপান:
মোট টিউশন ফি ২৪ হাজার ডলার। এ দেশে ৫০০টি কলেজ ও ইউনিভার্সিটি আছে। গণিত, বিজ্ঞান, প্রকৌশল ইত্যাদি বিষয়ে উচ্চশিক্ষা অর্জন বেশ ব্যয়বহুল।

৮. লিথুনিয়া:
মোট টিউশন ফি ২৩ হাজার ৯০৪ ডলার। ২০০৯ সালে দেশটির রাজধানী ভিলনিয়াসে শিক্ষার্থীরা বিক্ষোভ করেন। তাদের দাবী ছিল, উচ্চশিক্ষা অর্জনে যেন খরচ না বাড়ানো হয়। কিন্তু শেষ পর্যন্ত তাই ঘটেছে।

৯. চিলি:
মোট টিউশন ফি ২৩ হাজার ৬০০ ডলার। ২০১১-২০১৩ সালের মধ্যে এ নিয়ে ব্যাপক বিক্ষোভ হয়। দরিদ্র পরিবারের ছেলে-মেয়েদের শিক্ষা অর্জনে বাধা হয়ে দাঁড়ায় মুনাফালোভী শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো। এখানকার সাধারণ পরিবারকে সর্বস্ব দিয়ে লেখপড়ার খরচ যোগাতে হয়।

১০. ইউক্রেন:
মোট টিউশন ফি ২৩ হাজার ২০০ ডলার। এ অনেকগুলো বিশ্ববিদ্যালয় আছে। ইতালি, জার্মানি, ফ্রান্স, পোল্যান্ড এবং বেলজিয়ামের মোট বিশ্ববিদ্যালয়ের চেয়ে বেশি সংখ্যক আছে ইউক্রেনে। বিগত ৩ বছর এ দেশের ইউনিভার্সিটির সংখ্যা ২০০টি থেকে ৯০০টিতে উপনীত হয়েছে।

১১. মালয়েশিয়া:
মোট টিউশন ফি ১৮ হাজার ডলার। এখানে ২০টি বিশ্ববিদ্যালয় রয়েছে। স্কলারশিপ অথবা ঋণ ছাড়া অভিভাবকদের আয়ের অর্ধেক দিতে হয় সন্তানের লেখাপড়ার খরচে।