বৈষম্য বিলোপ করে সমঅধিকার প্রতিষ্ঠার আহ্বান জানিয়েছেন সমাজকল্যাণমন্ত্রী

প্রকাশিত: ৮:১৫ অপরাহ্ণ, মার্চ ৯, ২০১৮

বৈষম্য বিলোপ করে সমঅধিকার প্রতিষ্ঠার আহ্বান জানিয়েছেন সমাজকল্যাণমন্ত্রী

নারীদের সংগঠিত হয়ে আরও সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি ও সমাজকল্যাণমন্ত্রী রাশেদ খান মেনন।
বৈষম্য বিলোপ করে সমঅধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য তার এ আহবান ।

শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লাবে আন্তর্জাতিক নারী দিবস উপলকক্ষে জাতীয় গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে মন্ত্রী বলেন, নারীরা এ দিবসে তাদের মনে কথা খুলে বলেন। এ দিবসে অধিকারের প্রশ্নগুলো আরও তীব্রতর করতে হবে এবং এ বিষয়গুলো তুলে ধরতে হবে

প্রযুক্তির নির্ভরতায় গার্মেন্টস কারখানাগুলোতে নারী শ্রমিকের সংখ্যা কমছে জানিয়ে মন্ত্রী বলেন, “আমার গর্ব করে বলছি, নারীদের অংশগ্রহণে বৈদেশিক মুদ্রা আসছে। তবে কারখানা আধুনিকরণে নারী শ্রমিকের সংখ্যা কমছে এবং মেশিননির্ভর হওয়ায় মালিক পক্ষের পুরুষ শ্রমিকের নির্ভরতা বাড়ছে।

নারী বৈষম্যর বিষয়ে আরও সোচ্চার হতে হবে। শ্রমজীবী নারীদের  আরও সংগঠিত করে নারী অধিকারের বিষয়ে আরও সোচ্চার হতে হবে।”

আগামী সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনে সরাসরি নির্বাচনের বিষয়ে কথা হচ্ছে উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, “এটি খুবই যৌক্তিক দাবি কোনো সন্দেহ নেই। কিন্তু প্রশ্ন হচ্ছে, সংরক্ষিত নারী আসনে সরসারি নির্বাচন করে সরসারি নারী আসলেও কি তারা অধিকার পাবেন।

“আমাদের সরকার খুব গর্ব করে বলে, ইউনিয়ন পর্যায়ে এক তৃতীয়াংশ নারী সদস্য রয়েছে, সেখানে নারীরা সরাসরি নির্বাচন করে।কিন্তু যারা লোকাল গর্ভমেন্ট নিয়ে কাজ করে তারা বলে, ইউনিয়ন পর্যায়ে এই নারীরা কি কাজ পান কিনা, সমঅধিকার পান কিনা। উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানদের কোনো কাজ নেই। এই প্রশ্নগুলো আনতে হবে, অধিকারের ক্ষেত্রগুলো নিশ্চিত করতে হবে।”

বর্তমানে সংসদে ৫০টি সংরক্ষিত নারী আসন রয়েছে, যার সদস্যরা আইনসভায় আসেন পরোক্ষ ভোটে। দলগুলোর পাওয়া ভোটের ভিত্তিতে এই নারী আসন বণ্টন হয়।

সংসদে সংরক্ষিত নারী আসনের বিধির মেয়াদ আগামী বছর শেষ হয়ে যাবে বলে তা আরও ২৫ বছর বাড়াতে সংবিধানের সপ্তদশ সংশোধনীর প্রস্তাব গত জানুয়ারিতে অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা।

নারী নেত্রীরা বলে আসছেন, সংরক্ষিত আসনের মেয়াদ বাড়ানো হলে তা নারীর ক্ষমতায়নে ভূমিকা রাখবে না। এর বদলে স্থানীয় সরকারের মত সংসদেও নারী আসনে সরাসরি ভোট চান তারা।

আলোচনা সভায় গার্মেন্টস শ্রমিকদের মাতৃত্বকালীন ছুটি ৪ মাসের স্থলে ৬ মাস করা এবং প্রতিটি কারখানায় ‘যৌন হয়রানি নিরোধ কমিটি’ গঠনের দাবি তুলেন।

গার্মেন্টস শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি আমিরুল হকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি কামরুল হাসান, বিলসের নির্বাহী পরিচালক সৈয়দ সুলতান উদ্দিন আহমেদ।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

লাইভ রেডিও

Calendar

May 2024
S M T W T F S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728293031