বয়ানে রামাদান ২২

প্রকাশিত: ৯:১৪ অপরাহ্ণ, মে ৪, ২০২১

বয়ানে রামাদান ২২

চৌধুরী হাফিজ আহমদ
এই দুনিয়াতে আমাদের একটি সুস্পষ্ট দায়িত্ব দিয়ে পাঠানো হয়েছে , যা অন্য কোন কোন সৃষ্টি কে দেয়া হয়নি ,যা আল্লাহ ও মালাইকাদের কথোপকথন থেকে বুঝা যায় “ ইজ ক্কালা রাব্বুকা লিল মালাইকাতি ইন্নি জায়িলুন ফিল আরদি খালিফা “মালাইকাদের বললেন – জমিনে আমি খলিফা বানাব তখন বিরুধীতা এসেছিল , এই সব বিরুধীতাকে অভার রুল করে সিদ্ধান্ত একদম চূড়ান্ত করে আমাদের কে বানানো শুরু করলেন সায়িদিনা হজরত আদম আঃ থেকে শুরু , খলিফা শব্দের সাধারন অর্থ হল প্রতিনিধিত্ব করা , এই সকল প্রতিনিধির সাথে এক এক করা যোগাযোগ করার জন্য লাইন করে রাখলে সময়ের সাথে তাল মিলানো কঠিন হবে , একজন মানুষের হায়াত তত লম্বা নয় সৃষ্টি যত লম্বা , তাই যাহাতে সকল সৃষ্টি একসাথে চলতে পারে সেই ব্যবস্তা করা প্রয়োজন , কেননা ১ লক্ষ্ ২৩ ৯৯৯ জন নাবী রাসুল আঃ দিয়ে যে পরিক্ষা সমিক্ষা চালিয়েছেন তা বিবেচনায় রেখে সকল কুলের কাজ আনজাম দিতেই আমাদের মধ্যে একজন নবী প্রেরণ করলেন যাহার কর্ম থাকবে একদম চলমান যিনি থাকবেন কিয়ামত পর্যন্ত সচল , জনে জনে ওহী দিলে হিতে বিপরীত হবে তাই খলিফাদের জন্য এমন এক নির্দেশিকা দিয়েছেন যা স্বয়ংক্রিয় ভাবে কথা বলে , যখন যার প্রয়োজন তখনি আলাপ আলোচনা করে , নবী সঃ যে রকম ভাবে আমাদের কে বলেছেন, টিক হুবাহু সেই রকম ই নির্দেশনা দেয় যা তিনি দিয়েছেন , এই জিবন্ত নির্দেশিকার নাম ই হচ্ছে আল কোরআন মাজিদ , এইটা এমন এক সফটওয়ার যা নিজে নিজেই আপডেইট হয় নিজ থেকেই আলকিত হয় এবং অন্যকে আলো জ্বালিয়ে পথ দেখায় ,এখন আমরাই হচ্ছি সেই প্রতিনিধি বা খলিফা যা সেই দায়িত্ব বহন করছি ,এখন জিবরীল আঃ আসবেন না নবী ও আসবেন না তখন চলার একমাত্র উপায় ই হচ্ছে আল কোরআন যেখানে অতীত থেকে শিক্ষা নিয়ে বর্তমান কে চালনা এবং আগামির জীবন সম্পর্কে আগ্রিম অবগত করে তাহাতে চলাফেরা করার জন্য প্রশিক্ষন নিয়ে প্রস্তুতি গ্রহন করার তাগিদ রয়েছে । এই সেই নবী সঃ কে দিয়েই সম্পূর্ণ করা হয়েছে দ্বীন কে , আল ইসলাম হচ্ছে ইউফাসসিরুজ জামান , যখন তখন পরিবর্তন হয় , যুগের সাথে এক রকম , সফরে আরেক রকম , নিজের অবস্তানে এক রকম , অন্যের অবস্তানে এক রকম , দেশে এক রকম , বিদেশে এক রকম , অর্থাৎ আল ইসলামের হুকুম আহকাম বদলাতেই থাকে এবং সহজ হয়ে উঠে , মুসলিমদের জন্য এক রকম অমুসলিমদের জন্য আরেক রকম , ছোটদের জন্য এক রকম , বড়দের জন্য আরেক রকম , ধনীদের জন্য এক রকম , গরীবদের জন্য আরেক রকম , অক্ষম বা রোগীদের বেলায় আরেক রকম , সক্ষম দের জন্য এক রকম , এত সহজ হয়ে উঠা ধর্ম বা পন্থা আরেকটা নাই , এই সহজ ও সাবলীল আল ইসলামের ই আমরা খলিফা – তাই উন্নত থেকে উন্নত তর চরিত্রের অধিকারী হতেই আমাদের নিয়মিত প্রশিক্ষনের প্রয়োজন পরে , এই প্রয়োজনের তাগিদেই রামাদান মাসের আগমন । সুবহানাল্লাহি ওয়া বিহামদিহি সুবহানাল্লাহিল আজিম , আলহামদুলিল্লাহি রাব্বিল আল আমিন – আজকে আমরা এই মহান পবিত্র মাসের ২২ তম দিন অতিক্রম করছি , আশা করি আমরা সবাই পালন করছি সানন্দেই – আমরা যে যত পারি ইবাদত বন্দেগী করেই জীবন পরিবর্তনের দিকে নিয়ে যেতে পারি – লক্ষ যদি হয় জান্নাতে বাসস্তান করার তা হলে আমল করতে হবে জান্নাত উপযোগী এই সব আমলের মধ্যে কোন মন্দ অভ্যাসের স্তান নাই – বাজে যত অভ্যাস সব কিছুই শাইতানি , এর মধ্যে অপচয় মিথ্যা অবহেলা গাফিলতি হিংসা গীবত স্বার্থপরতা জুলুম নির্যাতন সুদ মদ জুয়া জিনা ইত্যাদি সব কিছুই এর মধ্যে আওতায় পরে । এই সব মন্দ থেকে দূরে পবিত্রতার মাধ্যমে জীবন চালানোর প্রশিক্ষন নিতে হয় রামাদান থেকে – আর মাত্র সপ্তাহ বাকি আমরা তাহাকে কাজে লাগাতে পারি ইবাদতের মাধ্যমে ক্কাদরের রাত আমাদের দেবে নতুন প্রেরণা , এক রাত্রি হাজার মাসের সমমানের – ৮৪ বছরের জীবন পাব কি না জানিনা তবে ২১ থেকে ২৯ রামাদান পেয়েছি আরও এবারে ও পাব বলে আমি আশাবাদি , তাই একদণ্ড সময় আল্লাহর জিকির থেকে বিরত থাকবনা ইনশাহ আল্লাহ – আল্লাহর জিকিরে রত সকল সৃষ্টি তাই আমরা ও এর ব্যাতিক্রম হবনা এমন ইবাদত বন্দেগী করে সময় কে সাক্ষি রাখলে পেতে পারি মুক্তি , সময়ের কসম আল্লাহ করেছেন “ ওয়াল আসরি ইন্নাল ইনসানা লাফি খুসর/ ইল্লাল লাজিনা আমানু ওয়া আমিলুস সওয়ালিহাত ওয়াতা ওয়া সাউবিল হাক্কি ওয়াতা ওয়া সাউবিস সাবর “ তাই ভাল অভ্যাস করে জীবন কেই চমকে দেই , আল্লাহ যেন আমাদের ভাল ভাল কল্যানকর আমল করার তাওফিক্ক দান করেন , আল্লাহ যেন আমাদের দুনিয়া ও আখিরাত আল কোরআনের আলো দিয়ে উজালা করে দেন , ইহিদনাস সিরাতুওয়াল মুসতাক্কিম , সিরাতুআল লাজিনা আন আমতা আলাইহিম , গাইরিল মাগদুবি আলাইহিম ওয়ালাদ দুআল্লিন/ আল্লাহুম্মারজুক্ক না শাফায়াতা নাবিয়িল কারিম/ আল্লাহুম্মা আখরিজনি মিনাজ জুলুমাতি ইলান নুর/ রাব্বানা আতমিম লানা নুরানা ওয়াগফিরলানা/ইয়া হাইউ ইয়া ক্কাইউম বি রাহমাতিকা আসতাগিছু/ আল্লাহুম্মা আজিরনা মিনান নার / রাব্বির হামহুমা কামা রাব্বায়ানি সাগিরা/ রাব্বি জিদনি ইলমা/ আল্লাহুম্মাগফিরলি মাউতা ওয়া মাউতাল মুসলিমিন/ আসতাগফিরুল্লাহ ওয়া আতবু ইলাইহি / আল্লাহুম্মাগফিরলি ওয়ালি ওয়ালিদাইয়া ওয়ালিল মুমিনিনা ইয়াউমাইয়া ক্কুমুল হিসাব , আল্লাহুম্মা সাল্লি আলা মুহাম্মাদ ওয়ালা আলি মুহাম্মাদ কামা সাল্লাই তায়ালা ইবরাহিম ওয়ালা আলি ইবরাহিম ইন্নাকা হামিদুম মাজিদ । লন্ডন ০৪-০৫-২০২১