মনু রক্ষা প্রকল্প ‘একনেকে পাশে’র আশ্বাস

প্রকাশিত: ৫:৪৭ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৯, ২০২০

মনু রক্ষা প্রকল্প ‘একনেকে পাশে’র আশ্বাস

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি: মনু নদীর ভাঙন হতে মৌলভীবাজার জেলার সদর, রাজনগর ও কুলাউড়া উপজেলা রক্ষা প্রকল্প শীঘ্রই জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি (একনেকে) পাশের আশ্বাস দিয়েছেন পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক এমপি।

রোববার সকালে মৌলভীবাজারে মনু নদীর চাঁদনীঘাট এলাকায় পরিদর্শন করে তিনি এই আশ্বাস প্রদান করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক নাজিয়া শিরিন, পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ, পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী রণেন্দ্র শংকর চক্রবর্তীসহ অন্যান্যরা।

পরিদর্শন শেষে পানি সম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক এমপি বলেন, “আগামী দুই সাপ্তাহের ভিতর এটা একনেকে আসবে, আসার পর আলোচনা হয়ে পাশ হবে। এবং পাশ হবে এই জন্য, কারণ এটা খুব গুরুত্বপূর্ণ একটা নদী যেটা শহর রক্ষার জন্য। সুতরাং আমরা এই মঙ্গলবারের পরের মঙ্গলবারে আশা করতে পারি যে এটা একনেকে আলোচনা হবে। একনেকে পাশ হওয়ার পর এটা আলোচনা হবে। তারপর যত শীঘ্রই সম্ভব এটা টেন্ডার করে কাজটা শুরু করব। এবং বছর খানেক পরে এটা একটা ভাল পর্যায়ে চলে আসবে”।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের সূত্রে জানা গেছে, মনু নদীর ভাঙন হতে মৌলভীবাজার জেলার সদর, রাজনগর ও কুলাউড়া উপজেলা রক্ষা প্রকল্প একনেকে পাশের অপেক্ষায় রয়েছে। সম্পূর্ণ সরকারি (জিওবি) অর্থায়নে এই প্রকল্পের ব্যয় ধরা হয়েছে প্রায় এক হাজার কোটি টাকা।

এবিষয়ে মৌলভীবাজার পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী রণেন্দ্র শংকর চক্রবর্তী জানান, “প্রায় প্রতিবছরই এই তিনটি উপজেলার কোথাও না কোথাও মনু নদীর প্রতিরক্ষা বাঁধ ভেঙে কমবেশি বন্যা নিয়ম হয়ে গেছে। এতে ক্ষতিগ্রস্থ হয় ফসল, রাস্তাঘাট, ঘরবাড়িসহ মূল্যবান নানা স্থাপনা। বারবার বন্যার ছোবলে নিঃস্ব হয়ে পড়ছে নদীর দুই পাশের অনেক পরিবার। এই বাস্তবতায় পাউবো মৌলভীবাজার কার্যালয় মনু নদীর বন্যার স্থায়ী সমাধানের জন্য একটি প্রকল্প গ্রহণ করেছে। অনুমোদনের পর এ প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে মনু নদের বন্যা সমস্যার দীর্ঘমেয়াদি সমাধান হবে বলে আশা করছি”।

ছড়িয়ে দিন