মৌলভীবাজারে নিজস্ব স্থাপনায় উদ্বোধন হলো অত্যাধুনিক লাইফ কেয়ার হাসপাতাল

প্রকাশিত: ১০:০০ অপরাহ্ণ, জুন ৫, ২০২০

মৌলভীবাজারে নিজস্ব স্থাপনায় উদ্বোধন হলো অত্যাধুনিক লাইফ কেয়ার হাসপাতাল

মোঃ আব্দুল কাইয়ুম,মৌলভীবাজার : প্রাণঘাতী করোনা দুর্যোগের মধ্যে মৌলভীবাজারে বেসরকারী খাতে চিকিৎসা সেবায় কম খরচে অত্যাধুনিক সব সুযোগ সুবিধা সম্বলিত নিজস্ব স্থাপনায় যাত্রা শুরু করেছে লাইফ কেয়ার হাসপাতাল এন্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টার।

শুক্রবার (৫জুন) বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে শহরের শ্রীমঙ্গল সড়কের দর্জিমহল এলাকার আমিন প্লাজায় নতুন আঙ্গিকে কোন ধরনের আনুষ্ঠানিকতা ছাড়াই যাত্রা শুরু করে বেসরকারী উদ্যেগে পরিচালিত এই হাসপাতালটি ।

দেশে প্রাণঘাতী করোনা সংক্রমণ ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়ার কারনে হাসপাতাল কতৃপক্ষ সম্পূর্ণ স্বাস্থ্য বিধি মেনে শুধুমাত্র দোয়া মাহফিল করে নিজস্ব ভবনে স্থাপিত হাসপাতালের কার্যক্রম শুরু করে।

২০০৫ সালের ২৫ ডিসেম্বর প্রবাসী অধ্যুসিত মৌলভীবাজার জেলা শহরে বেসরকারী খাতে উন্নত স্বাস্থ্য সেবা নিশ্চিতের লক্ষ্যে শহরের শ্রীমঙ্গল সড়কের মডেল থানার সামনে ব্যক্তি মালিকানাধীন একটি ভাড়া করা ভবনে হাসপাতালটি স্থাপন করেন বর্তমান পরিচালনা কমিটির চেয়ারম্যান মো. আব্দুল হালিম।

হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, নতুন ভবনে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ৮টি কেবিনসহ ২০ টি কেবিন,২ টি অত্যাধুনিক প্রযুক্তি সমৃদ্ধ অপারেশন থিয়েটার, কম ওজনে জন্ম নেয়া নবজাতকের পরিচর্যার জন্য বিশেষ যন্ত্র ইনকভেটর, আল্ট্রাস্নোগ্রাম, ইসিজি এক্সরেসহ হাসপাতালটিতে স্থাপন করা হয়েছে আধুনিক সব চিকিৎসা যন্ত্রপাতি। যেখানে বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকদের তত্বাবধানে গাইনী, সার্জারী, মেডিসিন ও অর্থপেডিক্স এর চিকিৎসা সেবা দেয়া হবে।

হাসপাতালের চেয়ারম্যান মো.আব্দুল হালিম জানান, সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী করোনা ভাইরাস সংক্রমণে শনাক্ত হওয়া রোগীদের জন্য আইসোলেশন সেন্টার চালু করা হবে শীঘ্রই। তিনি বলেন, আমরা প্রসূতী মায়েদের নিরাপদ ভবিষ্যত নিশ্চিতের লক্ষ্যে যথাসম্ভব চেষ্টা করি অপারেশন না করে নরমাল পদ্ধতিতে যাতে ডেলিভারী করা যায়।

হাসপাতালের ম্যানেজিং ডিরেক্টর ইমরান আহমেদ জানান, বাণিজ্যিক উচ্চাকাঙ্খার উদ্দেশ্যে নয়, আমরা মূলত সেবার মানসিকতা আর কম খরচে উন্নত সেবা নিশ্চিতের লক্ষ্যেই শুরুতে এই হাসপাতাল প্রতিষ্ঠার উদ্যেগ গ্রহণ করি।

ছড়িয়ে দিন

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Calendar

December 2021
S M T W T F S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728293031