মৌলভীবাজার শহরে জমে উঠেছে ঈদের কেনাকাটা

প্রকাশিত: ৭:৪২ অপরাহ্ণ, মে ৩১, ২০১৯

মৌলভীবাজার শহরে জমে উঠেছে ঈদের কেনাকাটা

ঈদকে সামনে রেখে শেষ মুহূর্তে মৌলভীবাজার শহরে জমে উঠেছে কেনাকাটা। অভিজাত মার্কেট থেকে শুরু করে ফুটপাত সর্বত্রই কেনাকাটার ধুম পড়েছে। ঈদের দিন যতই ঘনিয়ে আসছে ততই জমে উঠেছে এ বাজার।
প্রবাসী অধ্যুষিত এ জেলার কয়েক লাখ লোক লন্ডন, আমেরিকা, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা, জাপান, ইতালি, মালয়েশিয়া ও সৌদী আরব, কুয়েত, কাতার, ওমান বাহরাইন এবং মধ্যপ্রাচ্যসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে বাস করেন। প্রবাসীরাও ইতোমধ্যে ছুটি কাটাতে এবং তাদের আত্মীয়-স্বজনদের সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে দেশে এসেছেন।শহরের এম সাইফুর রহমান রোডের ঈদ বাজারের যানজট, ভিড় ও ঝামেলার মধ্যে দিয়ে অনেকেই কেনাকাটা করছেন কষ্ট করে।অভিযাত মার্কেটগুলোর মধ্যে এমবি ক্লথ স্টোর, বিলাশ ডিপাটমের্ন্টাল স্টোর, আলমদিনা ক্লথ স্টোর, আশরাফ সেন্টার, সেরাটাউন ফ্লাজা, সেভেন স্টার, শাপলা ম্যানশন, আরকে কমপ্লেক্সসহ অন্যান্য শপিং সেন্টারগুলো ক্রেতাদের উপচেপড়া ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। নামী-দামী বিপনী বিতানগুলির পাশাপাশি ফুটপাতের দোকানগুলিতে হরেক রকম ডিজানের কাপড় সাজিয়ে বসেছেন হকাররা।
নিম্ন আয়ের মানুষরা ভিড় জমাচ্ছেন ফুটপাতের এসব দোকানে। অবশ্য ঈদকে সামনে রেখে অযৌক্তিকভাবে কাপড়ের দাম বেশি রাখা হচ্ছে বলে অভিযোগ ক্রেতাদের। ফলে ক্রেতাদের বাধ্য হয়ে কয়েকগুণ বেশিদামে পোশাক কিনতে হচ্ছে।
গত ৩০ মে বৃহস্পতিবার দুপুরে মৌলভীবাজার জেলা ভোক্তা অধিকার নিয়ন্ত্রণ কার্যালয় এর সহকারী পরিচালক আল -আমিন শহরের এমবি ও বিলাস সহ কযেকটি প্রতিষ্ঠানে ভেজাল বিরোধী অভিযান চালিয়ে দ্রব্যমূল্যে অস্বাভাবিক দাম রাখার অভিযোগে জরিমানা করলে স্থানীয় অসাধু ব্যবসায়ীদের হাতে লাঞ্ছিত হতে হয়ছিলো এই সরকারি কর্মকর্তাকে।ঘটনাটি চাউর হলে শহরের আনাচে কানাচে চলে নানা জল্পনা, সমালোচনা ও নিন্দার ঝড়। এসব প্রতিকূল পরিবেশেও শহরে থেমে নেই ক্রেতাদের ঈদের কেনাকাটার ধুম। নিম্ন বিত্ত আয়ের থেকে শুরু করে উচ্চ বিত্ত পরিবারের সকলে এখন ঈদের কেনাকাটা নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন৷ সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত চাকরিজীবীরা ছুটছে নিজ বাড়ির পানে ঈদের আনন্দ পরিবারের সবার সাথে ভাগাভাগি করার জন্য।
এবারের ঈদবাজারে মেয়েদের শাড়ি, থ্রি পিস, সেলোয়ার-কামিজ, ফতোয়া, স্কার্ট-টপস, ছেলেদের লং ও শর্ট পাঞ্জাবি, ফতোয়া, শার্ট, জিন্স ও টি-শার্টসহ বাচ্চাদের নানা রঙ ও ডিজাইনের পোশাকের সমাহার ঘটেছে বিভিন্ন পোশাক বিপণীতে।
মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আলমগীর হোসেন জানান, যে কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে সার্বক্ষণিক টহল দিচ্ছে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।