ময়মনসিংহে করোনায় মৃত্যু বেড়েছে, একদিনে ১৪ জন

প্রকাশিত: ১১:৫২ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ৯, ২০২১

ময়মনসিংহে  করোনায় মৃত্যু বেড়েছে, একদিনে ১৪ জন

 

জেলা প্রতিনিধি

ময়মনসিংহে  করোনায় মৃত্যু বেড়েছে ।  মেডিকেল কলেজ (মমেক) হাসপাতালের করোনা ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, মৃতদের মধ্যে মধ্যে ছয় জনের করোনা শনাক্ত করা হয়েছিল। অপর আট জন করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা গেছেন।

মমেক হাসপাতালের মেডিসিন বিভাগের কনসালটেন্ট ও করোনা ইউনিটের মুখপাত্র ডা. মো. মহিউদ্দিন খান এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ব্যক্তিরা হলেন ময়মনসিংহ সদরের মফিজুর (৬৫), শহীদুল (৪৫), ঈশ্বরগঞ্জের মোজাম্মেল হক (৬০), গফরগাঁওয়ের সিরাজুল ইসলাম (৮০), নেত্রকোনা সদরের সাহেরা (৭০) ও পূর্বধলার আব্দুল মতিন (৬৮)।

এ ছাড়া করোনার উপসর্গ নিয়ে মারা যাওয়া ব্যক্তিরা হলেন ময়মনসিংহ সদরের আব্দুল জলিল (৬০), মোখলেছুর (৬৫), মীর জান (৮০), ভালুকার আলি নেওয়াজ (৫৫), গফরগাঁওয়ের কুলসুম (৫৫), শেরপুর সদরের আব্দুস সামাদ (৬৫), ঝিনাইগাতীর জয়তিয়া রানী (৪০) ও টাঙ্গাইলের আব্দুল জলিল (৫৬)।

ডা. মো. মহিউদ্দিন খান আরও জানান, বর্তমানে মমেক হাসপাতালের করোনা ইউনিটে ৩৮৬ জন রোগী ভর্তি রয়েছেন। এর মধ্যে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে (আইসিইউ) ভর্তি রয়েছেন ২০ জন।

এদিকে, জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় ৬৬৯টি নমুনা পরীক্ষার করে ১৮৭ জনের করোনা শনাক্ত করা হয়েছে। এর মধ্যে র‍্যাপিড অ্যান্টিজেন টেস্টে ১১৭ জন ও আরটি পিসিআর টেস্টে ৭০ জন শনাক্ত হয়েছে। শনাক্তের হার ২৭ দশমিক ৯৫ শতাংশ।

এদিকে, গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে ময়মনসিংহ সিভিল সার্জন কার্যালয় থেকে পাঠানো সর্বশেষ করোনা টেস্টের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ময়মনসিংহ সদরের ১০০ জন, নান্দাইলের ১৭ জন, ঈশ্বরগঞ্জের পাঁচ জন, গৌরীপুরের আট জন, ফুলপুরের তিন জন, তারাকান্দার দুজন, হালুয়াঘাটের একজন, মুক্তাগাছার ১৪ জন, ফুলবাড়িয়ার ১৪ জন, ত্রিশালের ১৩ জন, ভালুকার চার জন ও গফরগাঁওয়ের ছয় জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এর মধ্যে মমেক হাসপাতালে জেলার ১০৪ জন এবং বিভিন্ন উপজেলা হাসপাতালে ১৩ জন রোগী ভর্তি আছে। এখন পর্যন্ত জেলায় মোট নয় হাজার ৪৩৭ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ ছাড়া মৃত্যু হয়েছে ৯৮ জনের।

ছড়িয়ে দিন