সাহিত্য চর্চার কাজে সম্মাননা পেলেন এইচ বি রিতা

প্রকাশিত: ১০:১০ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ২৩, ২০২৩

সাহিত্য চর্চার কাজে সম্মাননা পেলেন এইচ বি রিতা

 

ডেস্ক রিপোর্ট

দেশের বাইরে সাহিত্য চর্চায় নিবেদিত প্রাণ এইচ বি রিতা তাঁর কাজ ও দেশ-বিদেশের লেখকদের সাথে সংযোগ স্থাপনে দক্ষতা অর্জন করেছেন।

এই কাজের জন্য তিনি সম্মাননা লাভ করেছেন। গত ১৪ জানুয়ারি শনিবার প্রথম আলো উত্তর আমেরিকার এক অনুষ্ঠানে এইচ বি রিতার হাতে সম্মাননা স্মারক তুলে দেন টাউনশিপ অফফ্রাঙ্কলিন,কাউন্টি অফ সমারসেট, নিউ জার্সি স্টেটের কাউন্সিলওম্যান শেপা উদ্দিন। জ্যাকসন হাইটসের জুইস সেন্টারের অগ্রসর বাংলাদেশি জনসমাজের উপস্থিতিতে মেয়র এবং কাউন্সিল সহ ফ্রাঙ্কলিন টাউনশিপের নাগরিকদের পক্ষ থেকে এইচ বি রিতা’কে কৃতজ্ঞতা জানিয়ে এ পুরস্কারটি প্রদান করা হয়। এইচ বি রিতা প্রথম আলো উত্তর আমেরিকার সাপ্তাহিক সাহিত্য সম্পাদক ও সাংবাদিক হিসাবে নিয়েজিত আছেন।

সম্মাননা স্বারক দেবার সময় শেপা উদ্দিন উল্লেখ্য করেন, প্রথম আলো উত্তর আমেরিকার সাহিত্য সম্পাদক হিসেবে এইচ বি রিতা তার সমবয়সীদের এবং অনুরাগীদের কাছে অসামান্য স্বীকৃতি অর্জন করতে সক্ষম হয়েছেন এবং তিনি বাংলাদেশ সম্প্রদায়ে বহু বছর ধরে জনসেবার জন্য সর্বজনীন স্বীকৃতি অর্জন করেছেন। পুরস্কার হাতে তুলে দেয়ার সময় শেপা উদ্দিন আরো বলেন, “আমি ফেসবুকে রিতার লেখা পড়ি, সে একজন দুর্দান্ত লেখক। আমি তার ইংরেজিতে প্রকাশিত বই দুটো পড়েছি।”

সাপ্তাহিক উত্তরের সাহিত্য-পাতার সম্পাদনায় আছেন এইচ বি রিতা। এর যাত্রা শুরু হয় ২০২১ সালের নভেম্বরের ২য় সপ্তাহে।স্বল্প সময়ের যাত্রা হলেও ইতিমধ্যেই সাহিত্য বিভাগটি দেশ-বিদেশের সর্বস্তরের সর্বশ্রেণীর লেখক, গল্পকার, কবিদের সৃষ্টিশৈলীতে দ্রোহ, প্রেম, প্রকৃতি, প্রতিবাদ, ঘৃণা, উৎকণ্ঠা, শ্লেষ, ব্যঙ্গাত্মক, রসাত্মক, সমাজসচেতন মূলক, নানা ধরণের কবিতা ও গল্পে উত্তরের সাহিত্য পাতার আঙ্গিনায় আলো ছড়িয়ে পাঠক হৃদয়ে মুগ্ধতা ঢেলে দিতে সক্ষম হয়েছে। উত্তরের সাহিত্যের এই যাত্রা নিঃসন্দেহে প্রবাসের বাংলা ভাষা ও সাহিত্যচর্চার ভিত্তিকে উত্তরোত্তর সমৃদ্ধ করবে।

এইচ বি রিতা দীর্ঘ ১৬ বছর যাবত শিক্ষকতায় জড়িত আছেন। নিউইয়র্কের স্পেশাল এডুকেশনে যুক্ত তিনি। বর্তমানে তিনি নিউইয়র্ক সিটির ভার্চয়্যাল হাইস্কুল ‘A School Without Walls’ -এ শিক্ষকতা করছেন। এ ছাড়াও তিনি নিউইয়র্ক সিটির শিক্ষা বিভাগে এডমিনিস্ট্রেটিভ এসিস্টেন্ট হিসাবে কাজ করার অভিজ্ঞতা অর্জন করেছেন। তিনি নিউইয়র্ক সিটিতে অনলাইনভিত্তিক পেরেন্ট ওয়ার্কশপগুলোতে বাঙালি সম্প্রদায়ের অভিভাবকদের সচেতনতা বৃদ্ধি ও সুযোগ সুবিধা প্রসারে একজন বাঙালি ইন্টারপ্রেটর হিসাবেও কাজ করার অভিজ্ঞতা অর্জন করেছেন।

এইচ বি রিতা যুক্তরাষ্ট্রে পাড়ি দেন কিশেরী বয়সে। নিউইয়র্কের টরো কলেজ এন্ড ইউনিভার্সিটি থেকে তিনি এডুকেশন এবং চাইল্ড সাইকোলোজির উপর উচ্চশিক্ষা সম্পন্ন করেছেন। বাংলা এবং ইংরেজি সাহিত্যের প্রতি অনুরাগী এইচ বি রিতা বাংলা ও ইংলিশ দুই ভাষাতেই সাহিত্য জগতে নিজের একটা অবস্থান গড়ে নিতে সক্ষম হয়েছেন। কবিতা লেখা তাঁর মধ্যে নেশার মতো কাজ করে। তবে পেরেন্টিং, শিশু যত্ন, মানসিক স্বাস্থ্য ও মানব আচরণ নিয়ে গবেষণামূলক কলামও লিখে যাচ্ছেন তিনি অত্যন্ত পারদর্শীতার সাথে। সময় সুযোগ পেলেই তিনি ছুটে যান লাইব্রেরিতে, সংগ্রহ করেন মানসিক স্বাস্থ্যের উপর নানান বিষয়ভিত্তিক ইংরেজি বইগুলো।
তিনি বিশ্বাস করেন, শরীরের যত্নের মতো প্রতিটা মানুষের মনেরও যত্ন নেয়া দরকার। কেননা, শরীরের অসুখ কেবল ব্যক্তিকেই ক্ষতিগ্রস্থ করে, কিন্তু মনের অসুখের সঠিক যত্ন না হলে সেটা ব্যক্তি, পরিবার, পরিবেশ, সমাজের প্রতিটা ক্ষেত্রে ক্ষত তৈরি করতে পারে।

তাঁর এ যাবত প্রকাশিত বইয়ের সংখ্যা ১১টি। অন্যধারা প্রকাশনী থেকে কাব্যগ্রন্থ-মৌনতা, কবিতা তুমি ভবিতব্য কষ্টের প্রতিচ্ছবি, দুঃখ জলের লহরী, রক্তাক্ত নীল এবং উপন্যাস-বিনু। প্রিয় বাংলা প্রকাশনী থেকে প্রবন্ধ-জোনাকির ডাকবাক্স, বার্ডস অফ প্যারাডাইস(সম্মিলিত কাব্যগ্রন্থ) আকাশের বুকে অগ্নিস্রোত(কবিতা) এবং ছোট গল্পের বই-দাগ। যুক্তরাষ্ট্রের ম্যাককিনলি প্রকাশনী থেকে ইংরেজি কবিতার বই-Diagonal Perspective-Poetry Tied to the Ribbon of Time এবং স্মৃতিচারণ Behind the Patina প্রকাশ হয়েছে।

Behind the Patina- বইটিতে এইচ বি রিতা তার ব্যক্তি জীবনের নানা বিষয়গুলো তুলে ধরেছেন অত্যন্ত দূরদর্শিতা সাথে।বইটি প্রসঙ্গে তিনি বলেন, “আমার এক মূল্যবান দলিল এই স্মৃতিচারণ বইটি। বইটি নিয়ে আমি আশাবাদী।”

উত্তরের সাহিত্য প্রসঙ্গে এইচ বি রিতা বলেন, “সাহিত্য- সাধনা ও চর্চার বিষয়। সাহিত্য-পর্যবেক্ষণ ও উপলদ্ধিতে আবেগ ও ভাবনার জগতে মগ্নতার বিষয়। সাহিত্যের অভ্যাস-সমষ্টিগত একাগ্রতা ও ঐক্যতার মতো কিছু একটাও, কেননা ভাবনার আদান-প্রদান আমাদেরকে নতুন ও ভিন্ন কিছু শিখতে ও জানতে সাহায্য করে। উত্তরের সাহিত্যের মাধ্যমে আমি নবীনদের সেই সাহিত্য চর্চা অব্যাহত রাখার পাশাপাশি জীবনের প্রতি ভিন্ন দৃষ্টিভঙ্গি নিয়ে আমাদের মেধাবী লেখক, কবিদের স্বাগতম জানাই।”

তিনি আরো বলেন, “আমি প্রথম আলো উত্তর আমেরিকা, বিশেষ করে সম্পাদক ইব্রাহিম চৌধুরীর কাছে কৃতজ্ঞ। তিনি আমার জন্য কেবল একজন সম্পাদকই নন, তিনি আমাকে বোনের মতো স্নেহ করেন। আমি কাউনসিলওম্যান শেপা উদ্দিনকে ধন্যবাদ জানাই আমাকে বিবেচনায় নেবার জন্য। এই পুরস্কার আমার জন্য বিরাট এক প্রাপ্তি, আমাকে আরো দায়িত্ব ও নিষ্ঠার সাথে সামনে এগিয়ে যাওয়ার উৎস ও‌ ‌অনুপ্রেরণা।”

এইচ বি রিতার জন্ম বাংলাদেশের নরসিংদী শহরে। তাঁর পিতা সামসুদ্দীন আহমেদ এছাক ছিলেন একজন রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব।সেই সাথে তিনি ছিলেন একজন লেখক, কবি, নাট্যকার, সুরকার, গীতিকার এবং মঞ্চ অভিনেতা। তিনি ছিলেন বাংলাদেশ বেতার কেন্দ্রের তালিকাভুক্ত শিল্পী। প্রতিভা শিল্পী গোষ্ঠী নামে একটি সংগীত সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন তিনি। এইচ বি রিতা বাস করছেন নিউইয়র্কের কুইন্সে।

 

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

লাইভ রেডিও

Calendar

January 2023
S M T W T F S
1234567
891011121314
15161718192021
22232425262728
293031