‘লেখাপড়ার পাশাপাশি খেলাধূলায় শিক্ষার্থীরা এগিয়ে যাবে’

প্রকাশিত: ১১:৩০ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ২৮, ২০১৬

‘লেখাপড়ার পাশাপাশি খেলাধূলায় শিক্ষার্থীরা এগিয়ে যাবে’

এসবিএন ডেস্ক: শীতের সকালে মিষ্টি রোদ্র উজ্জ্বল আবহাওয়ায় দেশের ৭৭৬ জন্য খেলোয়াড়ের অংশগ্রহণে শুরু হলো ৪৫তম শীতকালীন জাতীয় ক্রীড়া প্রতিযোগিতা।

বৃহস্পতিবার সকালে রাজশাহী মহানগরীর মুক্তিযুদ্ধ স্মৃতি স্টেডিয়ামে বেলন-ফেস্টুন উড়িয়ে এই আসর উদ্বোধন করেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, প্রতি বছরই আমরা নিজেদের ছাড়িয়ে যাচ্ছি। আমরা এই আত্মবিশ্বাসে পৌঁছেছি প্রতি বছরই আরও উন্নতমানের খেলাধুলার ব্যবস্থা হবে। শিক্ষার পাশাপাশি খেলাধূলায় শিক্ষার্থীরা এগিয়ে যাবে। সারা দেশ থেকে ২৩৪টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বিভিন্ন ধাপ অতিক্রম করে এই চূড়ান্ত পর্বে এসেছে। এক সময় মেয়েরা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আসতো না। কিন্তু এখন মেয়েরা পিছিয়ে নেই। তারা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে আসছে। শুধু তাই নয়, তারা পড়ালেখার পাশাপাশি খেলাধূলাসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে বড় অবদান রাখছে।

অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথি রাজশাহী সদর আসনের এমপি ফজলে হোসেন বাদশা বলেন, রাজশাহী হচ্ছে দেশের সবচেয়ে সুন্দর জায়গা। একসময় জঙ্গির অত্যাচার বেড়েছিল। কিন্তু আমরা এই রাজশাহীতে জঙ্গিকে পরাস্ত করেছি।

মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ফাহিমা খাতুনের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন শিক্ষা সচিব সোহরাব হোসাইন, ভারতীয় সহকারী হাই কমিশনার অভিজিৎ চট্টোপাধ্যায়, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরের পরিচালক ড. শেখ মো. ওয়াহিদুজ্জামান, ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান আবু বক্কর ছিদিক, রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডের ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ, দিনাজপুর শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আহমেদ হোসেন, বাংলাদেশ জাতীয় স্কুল ও মাদ্রাসা ক্রীড়া সমিতির উপ-পরিচালক ফারহানা হক এবং রাজশাহী জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন চৌধুরী।

দেশের ২৩৪টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ৭৭৬ জন্য শিক্ষার্থী ৭ ইভেন্টে লড়াই করবে। এরমধ্যে ৪১৬ জন ছাত্র ও ৩৬০ জন ছাত্রী। চারটি অঞ্চলে ভাগ হয়ে এই বড় আসরে তারা অংশগ্রহণ করছে। চট্টগ্রাম, সিলেট ও কুমিল্লা নিয়ে বকুল অঞ্চল, খুলনা, বরিশাল নিয়ে গোলাপ অঞ্চল, ঢাকা, ময়মনসিংহ নিয়ে পদ্ম অঞ্চল এবং রাজশাহী ও রংপুর নিয়ে চাঁপা অঞ্চলের হয়ে এবারের এই বড় আসরে প্রথমবারের মতো ক্রিকেট ও বাস্কেটবল ইভেন্টে খুদে শিক্ষার্থীরা প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। আগামী ৩১ জানুয়ারি এই প্রতিযোগিতা শেষ হবে।

ছড়িয়ে দিন

Calendar