সংযোগ বিচ্ছিন করতে গেলে কর্মকর্তার গলায় ছুরি ঠেকালেন গ্রাহক

প্রকাশিত: ৩:৫৩ অপরাহ্ণ, মে ২৯, ২০২২

সংযোগ বিচ্ছিন করতে গেলে কর্মকর্তার গলায় ছুরি ঠেকালেন গ্রাহক

মাজেদুল ইসলাম হৃদয়, বালিয়াডাঙ্গী (ঠাকুরগাঁও) প্রতিনিধি: ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গীতে বকেয়া বিদ্যুৎ বিল না দেওয়ায় সংযোগ বিচ্ছিন করতে গেলে সংযোগ বিচ্ছিন্ন না করার জন্য পল্লী বিদ্যুৎ কর্মকর্তার গলায় ছুরি ঠেকানোর অভিযোগ পাওয়া গেছে এক গ্রাহকের বিরুদ্ধে।

শনিবার (২৮ মে) দুপুরে উপজেলার দুওসুও ইউনিয়নের সনগাঁও গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। গ্রাহক ওই গ্রামের মৃত খবিতরের ছেলে গফফার আলী।

জানা যায়, বকেয়া বিদ্যুৎ বিল পরিশোধের জন্য গ্রাহকদের উদ্দেশ্যে একাধিক বার মাইকিং ও অস্থায়ী কেন্দ্র করা হলেও সাত মাসের বকেয়া বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করেনি গ্রাহক গফফার আলী। পল্লী বিদ্যুতের বালিয়াডাঙ্গী শাখার এজিএম কামরুল হাসান দলবল নিয়ে বকেয়া আদায় করতে সানগাঁও গ্রামে গ্রাহক গফফারের বাড়িতে যান। প্রথমে তারা গ্রাহকের নিকট বকেয়া বিদ্যুৎ বিলের টাকা চান। গ্রাহক গফফার আলী বকেয়া বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ করতে অস্বীকৃতি জানায়। পরে গ্রাহকের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করতে গ্রাহক গফফার আলী ও তার স্ত্রী তাদের ছেলে তারেকে বটি নিয়ে আসার কথা বললে তাদের ছেলে ঘর থেকে ছুরি নিয়ে আসে পল্লী বিদ্যুতের বালিয়াডাঙ্গী শাখার এজিএম কামরুল হাসানের গলায় ঠেকায়।

এক পর্যায়ে পল্লী বিদ্যুতের লোকদের জিম্মি করে রাখেন পরিবারটি। পরে বালিয়াডাঙ্গী থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে তাদের উদ্ধার করে।

এই বিষয়ে অভিযুক্ত গ্রাহক গফফার বলেন, গতকালকে বিদ্যুৎ বিলের কপি হাতে পেয়েছি। আগামী রোববার বিল জমা করার কথা ছিল। বিদ্যুৎ সংযোগ বিছিন্ন করলে পুনরায় সংযোগ নিতে ঝামেলা হবে সেই ভেবে আমরা পল্লী বিদ্যুতের লোকদের সঙ্গে না বুঝে খারাপ ব্যবহার করেছিলাম। পরে পুলিশের উপস্থিতিতে বিষয়টি সমাধান করেছি। তবে এখন বাড়ির বিদ্যুৎ সংযোগ বিছিন্ন রয়েছে।

পল্লী বিদ্যুতের বালিয়াডাঙ্গী শাখার সহকারী জেনারেল ম্যানেজার (এজিএম) কামরুল হাসান বলেন, একজন গ্রাহক আমাদের সঙ্গে খারাপ আচরণ করেছেন। এ ঘটনা একরকম হত্যা চেষ্টার শামিল। পুলিশ পরে ঘটনাটি নিয়ন্ত্রণে আনে। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি জানিয়েছি তারাই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিবে।

তিনি বিদ্যুৎ বিল পরিশোধ প্রসঙ্গে জানান, একজন গ্রাহকের বকেয়া বিদ্যুৎ বিল আদায়ের জন্য বাড়িতে বাড়িতে যাওয়ার কোন নিয়ম নেই। কিন্তু গ্রাহকের বিপদ-আপদ বা সমস্যার কথা চিন্তা করে আমরা অনেক সুযোগ দিচ্ছি। বিল পরিশোধের জন্য মাংকিং ও বিভিন্ন অস্থায়ী কেন্দ্র করেছি। তারপরও গ্রাহকরা বকেয়া বিদ্যুৎ বিল দেয় না।

বালিয়াডাঙ্গী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) খায়রুল আনাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, ঘটনাটি প্রাথমিকভাবে তারা সমাধান করে নিয়েছেন। মামলা হলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

লাইভ রেডিও

Calendar

March 2024
S M T W T F S
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
24252627282930
31