সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে ওয়ার্কার্স পার্টির মানববন্ধন

প্রকাশিত: ১১:৫৮ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ১৩, ২০১৭

সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে ওয়ার্কার্স পার্টির মানববন্ধন

সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে ওয়ার্কার্স পার্টির মানববন্ধন

আজ ১৩ নভেম্বর বিকেল ৪টায় বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টি ঢাকা মহানগর কমিটির উদ্যোগে জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে রংপুরে সাম্প্রদায়িক সহিংসতার প্রতিবাদে এক মানববন্ধন কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়। কর্মসূচিতে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা মহানগর সভাপতি কমরেড আবুল হোসাইন। বক্তব্য রাখেন পার্টির পলিটব্যুরো সদস্য কামরূল আহসান, ঢাকা মহানগর সাধারণ সম্পাদক কিশোর রায়, মহানগর নেতা জাহাঙ্গীর আলম ফজলু, কৃষক নেতা মোস্তফা আলমগীর রতন, খেতমজুর নেতা জাকির হোসেন রাজু, নারী নেত্রী শিউলী শিকদার, শ্রমিকনেতা আব্দুল্লাহ আল মামুন, গৃহ শ্রমিকনেতা মুর্শিদা আখতার, যুবনেতা সাদাকাত হোসেন বাবুল, ছাত্রনেতা এমরান প্রমুখ।
নেতৃবৃন্দ বলেন, রংপুরে হিন্দু সম্প্রদায়ের বাড়ী ঘরে পরিকল্পিতভাবে আগ্নিসংযোগ ও ভাঙ্গচুর ঘটনার তীব্র নিন্দা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তারা বলেন, “ফেসবুকে” কথিত পোস্ট দেয়ার নাম করে সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের উপর এই আক্রমণ সাম্প্রদায়িক পরিস্থিতি তৈরির চক্রান্ত। ইতোপূর্বেও কক্সবাজারের রামুতে বৌদ্ধ মন্দির ধ্বংস, নাসির নগরে হিন্দু সম্প্রদায়ের বাড়ী ঘরে তান্ডব চালানোসহ বিভিন্ন জায়গায় সাম্প্রদায়িক হামলা চালানোর জন্য পরিকল্পিতবাবে “ফেসবুক গল্প” সৃষ্টি করা হয়েছে। হামলার সাথে যুক্ত হোতাদের চিহ্নিত করে তাদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক বিচার শাস্তি প্রদানের আহ্বান জানানো হয়। রংপুরের সলেয়াস বাজারের ব্রাহ্মণ পাড়া হিন্দুদের বাড়ী-ঘরে আক্রমণ ও জ্বালিয়ে দেয়ার ঘটনাটিও একই ষড়যন্ত্রের কেন্দ্র থেকে উৎসারিত। এই ঘটনায় জামাত-শিবিরের সংশ্লিষ্টতার বিষয়টি সামনে এসেছে। দেশে একটি সাম্প্রদায়িক পরিস্থিতি তৈরি করে রাজনৈতিক সুবিধা অর্জন করতে যারা তৎপর তারাই এই ঘটনার সাথে জড়িত।
নেতৃবৃন্দ আরও বলেন, হিন্দু সম্প্রদায়ের ঘর-বাড়ীতে সন্ত্রাসী হামলা ও অগ্নিসংযোগকারীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি প্রদানের আহ্বান জানান। সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের জানমালের নিরাপত্তা প্রদান ও এলাকায় সৃষ্ট ভয়ার্ত অবস্থা দূর করে শান্তিপূর্ণ পরিবেশ ফিরিয়ে আনার জন্য আইনশৃঙ্খলা রক্ষা বাহিনী ও স্থানীয় প্রশাসনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। হামলায় ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের পুনর্বাসনে সহায়তাদানে সরকারের প্রতি আহ্বান জানান।