সূরা আত্ব-তুর

প্রকাশিত: ১:৫৬ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ২১, ২০২০

সূরা আত্ব-তুর


দয়াময় দয়ালু আল্লাহর নামে

র্মে অনুবাদক ঃ মুহম্মদ নূরুল হুদা


শপথ তুর পাহাড়ের;

শপথ লিখিত সেই কিতাবের;

ছত্রে ছত্রে উন্মুক্ত পৃষ্ঠার বিবরণের;

শপথ বায়তুল মামুর তথা আবাদ গৃহের;

শপথ সমুন্নত ছাদের (বা আকাশের);

শপথ উত্তাল সমুদ্রের;

তোমার প্রতিপালকের দ্বারা ধার্য
সমূদয় শাস্তি অবশ্যই অনিবার্য।

ঠেকাতে পারবে না তাকে কেউ আর।

সেদিন আকাশ প্রকম্পিত ভীষণভাবে,
১০
পর্বত সব তীব্রগতি উড়েই যাবে;
১১
সেদিন অশেষ দুর্ভোগ হবে
প্রত্যাখ্যান করবে যারা,
১২
সারা জীবন অসার খেলার
কর্মকাণ্ডে লিপ্ত যারা।
১৩
সেদিন তাদের ধাক্কা মেরে
নেয়া হবে অগ্নিকুণ্ড জাহান্নামে।
১৪
বলা হবে, “এই সেই অগ্নি ভীষণ,
তোমরা যাকে ভেবেছিলে মিথ্যা মায়া,
প্রত্যাখানও করেছিলে; তাকেই
এবার বরণ করো পরিণামে।
১৫
এই কি জাদু? দেখোনি কি নিজ চোখেই?
১৬
এখন তোমরা করবে প্রবেশ এইখানেই।
ধৈর্য ধরো, নাই-বা ধরো, সমান কথা।
মর্ত্যকর্মের সব প্রতিফল পাবেই হেথা।
১৭
খোদাভীরু সবাই পাবে জান্নাতেরই নিয়ামত।
১৮
উপভোগ করবে তারা প্রভুর দেয়া নিয়ামত;
আযাব থেকে পরিত্রাণের পাবে তারা সহবত।
১৯
বলা হবে, “আহার করো, পানও করো তৃপ্তিমতো,
এই প্রতিদান পাবে তারা ইহকালের আমল-মতো।
২০
বসবে তারা হেলান দিয়ে সজ্জাশোভন সুখাসনে;
জুড়ি তারা বাঁধবে তখন সুলোচনা হুরের সনে ।
২১
ঈমানদার আর ঈমানদারের অনুগামী সন্তানেরা
(সবাই মিলে শান্তিসুখে) একত্রে বাস করবে তারা;
আমলমাফিক প্রতিদানও সঠিক পাবে, কম পাবে
না। নিজের নিজের কাজের জন্য দায়ীও তারা।
২২
সব ধরনের ফলফলারি আর মাংস পাবে তারা
জান্নাতের সেই বাসিন্দারা, পছন্দসই চাইবে যারা।
২৩
(পানাহারে প্রতিযোগী নেবে সবার খোশখবর)
আদান-প্রদান করবে তারা পানপাত্র পরস্পর,
বলবে না কেউ অসংলগ্ন কথাবার্তা অতঃপর,
আসক্ত কেউ হবে না আর পাপাচারে পানের পর ।
২৪
সেবায় তাদের থাকবে সদা নিয়োজিত কিশোরগণ,
ঘুরবে তারা তাদের পাশে মুক্তো-মতন সুদর্শন।
২৫
মুখোমুখি বসবে যখন, চলবে স্মৃতির আলাপন।
২৬
”ইহলোকে আল্লাহ-ভয়ে পরিবারের আমরা সবাই
ভীত ছিলাম; (এখানে তো তেমন কোনো ভয় নাই)।
২৭
অনুগ্রহ দিলেন তিনি আমাদেরকে একে একে;
সুরক্ষাও তিনিই দিলেন অগ্নিকুণ্ডের শাস্তি থেকে।
২৮
ইতিপূর্বে ইহলোকে আমরা তাঁরই শরণ নিতাম;
তিনি পরম সৌজন্যশীল, তিনি পরম দয়াধাম।“
২৯
উপদেশ তাই আপনিই দিন; প্রভুর অনুগ্রহের কারণ
আপনি তো আর গণক নন, এমনকি উন্মাদও নন।
৩০
বলতে কি চায় তারা তবে, “সে কি এক কবি নাকি?
অপেক্ষমাণ আমরাও, তার বিপর্যেয়ের কত বাকি?”
৩১
তাদের বলো, ”তোমরা আছো যে প্রতীক্ষায়,
আমরা সবাই আছি আজো সেই প্রতীক্ষায়।”
৩২
নিজের বিবেকবুদ্ধি দিয়ে এ-সব কথা বলে তারা?
তারা বরং তাদের দলে, সীমালঙ্ঘন করে যারা।
৩৩
বলে নাকি, “কুরআন কি তাঁর নিজের লেখা?”
বরং তারা অবিশ্বাসী, (নিজের কথা নিজের শেখা)।
৩৪
সত্য যদি বলে তারা, তাদের বলো তবে “শোনো,
পারো যদি লিখে আনো ঠিক অনুরূপ বাণী কোনো।”
৩৫
আপনা-আপনি সৃষ্ট তারা?
নাকি নিজের স্রষ্টা নিজেই তারা?
৩৬
ভূমণ্ডল ও নভোমণ্ডল
তারাই সৃষ্টি করেছে নাকি?
সংশয়ী আর অবিশ্বাসী
(নিজকে নিজে দেয় ফাঁকি!)
৩৭
তাদের কাছে আছে কি তাঁর ভাণ্ডার?
নাকি তারা এ-সব কিছুর পাহারাদার?
৩৮
আকাশ-চড়ার মই কি আছে তাদের কাছে তথা,
যে মই বেয়ে শোনা যায় সব (ঊর্ধলোকের) কথা?
তাহলে তা প্রমাণ করুক, থাকে যদি তেমন শ্রোতা।
৩৯
নাকি আল্লাহর শুধু কন্যাসন্তান,
আর তোমাদের সব পুত্রসন্তান?
৪০
উপদেশ দিয়ে দাবি কি করেন পারিশ্রমিক,
যাকে তারা বাড়তি বোঝা ভাবছে বেঠিক ?
৪১
তাদের কাছে আছে নাকি দৃশ্যাতীতের জ্ঞান,
খাতার পাতায় লিখছে তারা যার অভিজ্ঞান?
৪২
চক্রান্তও করছে নাকি তারা?
জেনে রাখো, কাফের যারা
চক্রান্তের শিকার স্বয়ং তারা।
৪৩
আছে নাকি উপাস্য কেউ আল্লাহ ছাড়া?
তারা যাকে শরীক করে, সেই শিরক থেকে
পবিত্র (আমার প্রভু) মহান আল্লাহতালা।
৪৪
আকাশ থেকে পড়তে দেখে ভগ্ন মণ্ড,
তারা তখন বলে তাকে মেঘের খণ্ড!
৪৫
উপেক্ষাতে দাও ছেড়ে দাও তাদেরকেও ততক্ষণ,
বজ্র এসে তাদের উপর হানবে আঘাত যতক্ষণ ।
৪৬
লাগবে না আর সেদিন কোনো চক্রান্তও তাদের কাজে,
আসবে না আর কোনো রকম সহায়তা তাদের মাঝে।
৪৭
এমন আরো শাস্তি আছে জালিম-পাপীর পিছু পিছু…
তাদের অধিকাংশ কিন্তু জানে না তার কোনো কিছু।
৪৮
সবর করুন প্রভুর নিকট নির্দেশের অপেক্ষায়।
আপনি আছেন আমাদেরই দৃষ্টিপথের সীমানায়।
সপ্রশংস পবিত্রতা ঘোষণা করুন প্রভুর নামে;
তাঁর নামেই শয্যাত্যাগ যখন করেন দিবসযামে।
৪৯
আবার রাত্রিবেলায়, যে মুহূর্তে তারকাদের অস্তগমন,
মহান প্রভুর তসবিহ করো তুমিও কিন্তু ঠিক তখন।
১৭-১৮.০৪.২০২০

ছড়িয়ে দিন

এ সংক্রান্ত আরও সংবাদ

Calendar

December 2021
S M T W T F S
 1234
567891011
12131415161718
19202122232425
262728293031